• banlag
  • newspaper
  • epaper

ঢাকা , মঙ্গলবার, ০৭ এপ্রিল ২০২০

 

সাধারণ মানুষের দুর্ভোগের কথা বিবেচনা না করে বিদ্যুতের মূল্যবৃদ্ধি করেছে : রিজভী

নিউজ আপলোড : ঢাকা , শুক্রবার, ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২০

সংবাদ :
  • নিজস্ব বার্তা পরিবেশক
image

বিদ্যুতের দাম বৃদ্ধিকে অযৌক্তিক উল্লেখ করে সরকারকে একপেশে এই সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসার দাবি জানিয়েছে বিএনপিসহ বিভিন্ন সংগঠন। শুক্রবার (২৮ ফেব্রুয়ারি) সংবাদ সম্মেলন ও বিবৃতির মাধ্যমে এ দাবি জানায় সংগঠনগুলো। দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত এক সংবাদ সম্মেলনে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেন, সাধারণ মানুষের দুর্ভোগের কথা বিবেচনা না করে সম্পূর্ণ গণবিরোধী এ নিশিরাতের সরকার বিদ্যুৎ ও ওয়াসার পানির মূল্যবৃদ্ধি করেছে। গণমানুষ, ভোক্তা অধিকার কিংবা ব্যবসায়ী সংগঠনগুলোর যুক্তি-অনুরোধ কোন কিছুরই তোয়াক্কা না করে যখন মন চাচ্ছে গ্যাস-বিদ্যুৎ-পানির দাম বাড়িয়ে জনগণের পকেট কাটছে।

রিজভী বলেন, আওয়ামী দুঃশাসকদের আমলে এ নিয়ে ৯ বার বাড়ানো হলো বিদ্যুতের দাম। বারবার বিদ্যুতের দাম বাড়ানোর ফলে সাধারণ মানুষের পিঠ দেয়ালে ঠেকেছে। শিল্প মালিকদেরও ছেড়ে দে মা কেঁদে বাঁচি দশা। দেশীয় শিল্প কারখানা ধ্বংস করে লাখ লাখ মানুষের কর্মসংস্থান বন্ধের মাধ্যমে দেশকে বড় ধরনের বিপর্যয়ের দিকে ঠেলে দেয়ার চক্রান্ত চলছে।

তেল-গ্যাস খনিজ সম্পদ ও বিদ্যুৎ-বন্দর রক্ষা জাতীয় কমিটির আহ্বায়ক প্রকৌশলী শেখ মুহাম্মদ শহীদুল্লাহ এবং সদস্য সচিব অধ্যাপক আনু মুহাম্মদ এক বিবৃতিতে বলেন- কয়েক মাস আগে গ্যাসের দাম বৃদ্ধির পর আবার ২৭ ফেব্রুয়ারি সরকারের নির্দেশে বিইআরসি গ্রাহক পর্যায়ে বিদ্যুতের দামবৃদ্ধির ঘোষণা দিয়েছে। এটি গণশুনানিতে প্রদত্ত তথ্য, যুক্তি এবং প্রাপ্ত ফলাফলের পরিপন্থী। এই দাম বৃদ্ধির যুক্তি দিতে গিয়ে বলা হচ্ছে, দেশে গ্যাস সংকটের কারণে তেলনির্ভর বিদ্যুৎ উৎপাদনের ফলে বিদ্যুতের উৎপাদন ব্যয় বাড়ছে, সেই জন্য দাম বাড়াতে হয়েছে। এই বক্তব্য পুরোপুরি অসত্য ভাষণ। কারণ প্রথমত, গ্যাস সংকটের জন্য নয় বরং রাষ্ট্রীয় কম দামে বিদ্যুৎ উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠানে গ্যাস সরবরাহ না করে বেশি ব্যয়বহুল বিভিন্ন বেসরকারি বিদ্যুৎ ব্যবসায়ীদের গ্যাস সরবরাহের কারণে এবং অযৌক্তিকভাবে কুইক রেন্টাল ব্যবসায়ীদের ভর্তুকি দেবার কারণে বিদ্যুৎ উৎপাদন ব্যয় বাড়ছে। সরকার তার মহাপরিকল্পনা (পিএসএমপি ২০১৬) অনুযায়ী দেশের গ্যাস অনুসন্ধান স্থগিত করে এলএনজি-কয়লা আমদানির পথ ধরেছে, দেশ বিনাশী ব্যয়বহুল বিদ্যুৎ উৎপাদনের দিকে যাচ্ছে, ব্যয়বহুল কুইক রেন্টাল বিদ্যুৎ উৎপাদন অব্যাহত রেখেছে। জাতীয় সক্ষমতা বিপর্যস্ত করে সরকার একদিকে সাগরের গ্যাস রপ্তানির বিধান রেখে বিদেশি কোম্পানির সঙ্গে চুক্তি করছে, অন্যদিকে গ্যাস সংকটের অজুহাতে সুন্দরবন বিনাশী প্রকল্প, ভয়ঙ্কর ঝুঁকি ও বিপুল ঋণের রূপপুর প্রকল্পের উদ্যোগ নিচ্ছে। ‘তেল-গ্যাস খনিজ সম্পদ ও বিদ্যুৎ বন্দর রক্ষা জাতীয় কমিটি’ কম দামে পরিবেশ সম্মতভাবে বিদ্যুৎ উৎপাদনের বিকল্প মহাপরিকল্পনা উপস্থিত করা সত্ত্বেও তাতে কান না দিয়ে সরকার তার মহাপরিকল্পনা অনুযায়ী বিদ্যুৎ খাতকে ক্রমাগত কিছু দেশি-বিদেশি গোষ্ঠীর ডাকাতি ব্যবসার খাতে পরিণত করছে। তাদের স্বার্থ রক্ষা করতে গিয়েই বারবার বাড়ানো হচ্ছে গ্যাস ও বিদ্যুতের দাম। গণশুনানিতে যুক্তি তথ্যে প্রমাণিত হয়েছে বিদ্যুতের দাম বাড়ানো নয় বরং কমানো উচিৎ এবং তা সম্ভব। কিন্তু সরকারের আগে থেকেই সিদ্ধান্ত নেয়া, দাম বাড়াতেই হবে! বারবার গ্যাস-বিদ্যুতের দামবৃদ্ধি অর্থনীতির জন্য বোঝা হচ্ছে, সব পর্যায়ের মানুষের জীবনযাত্রার ব্যয় বাড়াচ্ছে। সর্বশেষ এই দাম বৃদ্ধিতে সব পর্যায়ে আরেক দফা উৎপাদন ব্যয় বাড়বে, বাড়বে বাসা ভাড়াসহ অন্য সব দ্রব্যসামগ্রীর দাম, বাড়বে শিল্প, কৃষি পণ্যের দাম, কমবে দেশের অর্থনীতিতে প্রতিযোগিতা ক্ষমতা। আমরা তাই আবারও বিদ্যুতের দাম বৃদ্ধির সিদ্ধান্ত বাতিল করে জাতীয় কমিটি প্রস্তাবিত মহাপরিকল্পনা অনুযায়ী গ্যাস ও বিদ্যুৎ খাত বিন্যাসের দাবি জানাচ্ছি।

বিদ্যুতের মূল্য বৃদ্ধির ঘোষণাকে ‘যুক্তিহীন ও একপেশে’ বলে অভিহিত করে তা প্রত্যাহারের দাবি জানিয়েছে ওয়ার্কার্স পার্টি। এক বিবৃতিতে পার্টির সভাপতি রাশেদ খান মেনন এমপি ও সাধারণ সম্পাদক ফজলে হোসেন বাদশা এমপি এই দাবি জানান।

বিবৃতিতে দুই নেতা বলেন, বিদ্যুৎ নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশনের (বিআরসি) গণশুনানিতে ভোক্তাদের পক্ষ থেকে দাম কমানোর পক্ষে যুক্তিসঙ্গতভাবে তথ্য-উপাত্ত উপস্থাপন করা হয়েছিল। সে সময় ওইসব যুক্তি কোনভাবেই খ-ন করতে পারেনি বিআরসি কর্তৃপক্ষ। কিন্তু ভোক্তাদের সব যুক্তিকে অগ্রাহ্য করে গ্রাহক পর্যায়ে ৫ দশমিক ৩ শতাংশ দাম বাড়ানো হয়েছে।

বিবৃতিতে বলা হয়, বিদ্যুতের দাম বাড়ানোর প্রভাব পড়বে সাধারণ ভোক্তাদের ওপর। এতে যেমন আর্থিক চাপ তৈরি হবে, তেমনি উৎপাদিত পণ্যমূল্যও বেড়ে যাবে। বিশেষ করে দৈনন্দিন জীবনযাত্রার ব্যয় ও নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসপত্রের দামে প্রভাব পড়বে। যা সামগ্রিক অর্থনীতিতে বিরূপ প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি করে জনজীবনের সংকট বাড়াবে।

এই সংকটময় মুহূর্তে বিএনপিকে জনগণের পাশে দাঁড়ানোর আহ্বান ওবায়দুল কাদেরের

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের করোনাভাইরাসের এই সংকটময় মুহূর্তে সরকারের সমালোচনায়

করোনা প্রতিরোধে আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনগুলোর নানা উদ্যোগ

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

দেশে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ প্রতিরোধে আওয়ামী লীগ এবং এর সহযোগী, ভ্রাতৃপ্রতীম ও সমমনা কয়েকটি সংগঠন সচেতনতামূলক প্রচারপত্র

করোনা মোকাবেলায় বিএনপিকে ইতিবাচক রাজনীতি করার আহবান ওবায়দুল কাদেরের

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের করোনা ভাইরাসের এই সংকটকালে বিএনপিকে ইতিবাচক

sangbad ad

করোনা মোকাবেলায় বিরোধীদলকে এগিয়ে আসার আহ্বান ওবায়দুল কাদেরের

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল

আপনার জীবন সুখ ও সাফল্যে ভরে উঠুক : অলি আহমদকে নরেন্দ্র মোদি

কূটনৈতিক বার্তা পরিবেশক

image

অলি আহমদকে জন্মদিনের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি

চসিক ও সংসদীয় ৫টি আসনে নির্বাচনী প্রচারণায় ভাটা

ফয়েজ আহমেদ তুষার

image

করোনাভাইরাসের প্রভাব দেশের রাজনৈতিক অঙ্গনে স্থবিরতা সৃষ্টি করেছে। চলতি মার্চে ৫টি সংসদীয় আসনে উপনির্বাচন এবং চট্টগ্রাম সিটি

করোনা নিয়ে নোংরা রাজনীতি করবেন না : বিএনপিকে ওবায়দুল কাদের

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বিএনপির উদ্দেশ্যে বলেছেন, করোনা ভাইরাস পরিস্থিতিতে

করোনাভাইরাস নিয়ে ফখরুলের বক্তব্য দায়িত্বহীন : নাসিম

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

বিএনপি নেতাদের দায়িত্ব থেকে পদত্যাগ করা উচিত মন্তব্য করে আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য এবং সংসদ সদস্য মোহাম্মদ নাসিম

মুজিববর্ষের অনুষ্ঠানে বিএনপি বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করতে চায় : ওবায়দুল কাদের

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, মুবিজবর্ষের অনুষ্ঠানকে কেন্দ্র করে বিএনপি

sangbad ad