• banlag
  • newspaper
  • epaper

ঢাকা , মঙ্গলবার, ০২ জুন ২০২০

 

কৃষকদের প্রায় ৮১ কোটি টাকা প্রণোদনা দিবে সরকার

নিউজ আপলোড : ঢাকা , বুধবার, ৩০ অক্টোবর ২০১৯

সংবাদ :
  • নিজস্ব বার্তা পরিবেশক
image

সরকার রবি মৌসুম সামনে রেখে মোট ৯টি ফসলে দেশের ৬ লাখ ৮৬ হাজার ৭শ ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক কৃষককে ৮০ কোটি ৭৩ লাখ ৯১ হাজার ৮শ টাকা প্রণোদনা দিবে। এই প্রনোনদা থেকে আয় হবে প্রায় ৮শ ৪০ কোটি ২৯ লাখ ৩৪ হাজার ২৯১ টাকা। ৩০ অক্টোবর কৃষিমন্ত্রী কৃষিমন্ত্রী ডা. আবদুর রাজ্জাক সচিবালয়ে কৃষি মন্ত্রণালয়ের সম্মেলনকক্ষে কৃষি প্রণোদনা কার্যক্রম সম্পর্কে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে একথা জানান। মন্ত্রী বলেন এর ফলে দেশের ৬৪ জেলার ৬ লাখ ৮৬ হাজার ৭শ বিঘা জমি এ প্রণোদনার আওতায় আসবে। এসময় কৃষি সচিব নাসির উদ্দিন উপস্থিত ছিলেন।

কৃষিমন্ত্রী ডা. আবদুর রাজ্জাক বলেন, বৈশ্বিক জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে সৃষ্ট বন্যা ও বৈরী প্রভাব মোকাবিলায় কৃষিবান্ধব সরকার কৃষকদের পাশে থেকে সহায়তা দিয়ে আসছে। জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবিলায় প্রতিকূলসহিষ্ণু বিভিন্ন ফসলের আবাদ বাড়াতে প্রতিবছরের মতো এবারও নয়টি ফসলে প্রণোদনা কার্যক্রম গ্রহণ করেছে। কৃষিপণ্যের বহুমুখীকরণ ও খাদ্যে পুষ্টি নিশ্চিত করা সরকারের জন্য বড় চ্যালেঞ্জ এবং প্রধান লক্ষ্য। এ কর্মসূচি বাস্তবায়ন হলে ৬ লাখ ৮৬ হাজার ৭শ বিঘা অর্থাৎ, ৯১ হাজার ৭৪৫ হেক্টর জমি চাষ করা সম্ভব। এতে প্রায় ৮শ ৪০ কোটি টাকা ২৯ লাখ ৩৪ হাজার ২৯১ টাকা আয় হবে বলে আশা প্রকাশ করেন তিনি।

এবার মোট ৯টি ফসল কৃষিপ্রণোদনা কার্যক্রমে অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। এগুলো হলো- গম, ভুট্টা, সরিষা, সূযর্মুখী, চিনাবাদাম, শীতকালীন মুগ, পেঁয়াজ ও পরের খরিপ-১ মৌসুমে গ্রীষ্মকালীন মুগ ও গ্রীষ্মকালীন তিল। এই নয়টি ফসল আবাদের এলাকা বৃদ্ধি, হেক্টরপ্রতি ফসলের ফলন বৃদ্ধি, সার্বিকভাবে দানাশস্য এবং ডাল, তেল ও মসলা জাতীয় ফসলের উৎপাদন বৃদ্ধি এবং প্রাকৃতিক কারণে কৃষকদের ক্ষয়ক্ষতি কাটিয়ে ওঠা এই প্রণোদনার উদ্দেশ্য বলে জানিয়েছেন কৃষিমন্ত্রী।

তিনি বলেন, মোট ৬ লাখ ৮৬ হাজার ৭ জন কৃষক এ প্রণোদনা সুবিধা পাবেন। এদের মধ্যে ৭৫ হাজার জন পাবেন গম চাষের জন্য, ভুট্টার জন্য ২ লাখ ৫০ হাজার জন, সরিষার জন্য ২ লাখ ৪০ হাজার জন, সূর্যমুখীতে ৪ হাজার জন, চীনাবাদাম চাষে পাবেন ১০ হাজার জন, গ্রীষ্মকালীন তিলে ২৫ হাজার জন, শীতকালীন মুগে ৪৫ হাজার জন, গ্রীষ্মকালীন মুগের জন্য ৩০ হাজার জন, পেঁয়াজ চাষে পাবেন ৭ হাজার ৭ জন কৃষক। এসব কৃষকের প্রত্যেকে ১ বিঘা জমির জন্য শস্যবীজ, ডিওপি, এমওপি সার দেওয়া হচ্ছে। স্থানীয় কৃষি স¤প্রসারণ অধিদপ্তরের মাধ্যমে কৃষি প্রণোদনা গ্রহণ করতে পারবেন সুবিধাপ্রাপ্ত কৃষকরা।

কৃষিমন্ত্রী জানান, প্রতিজন কৃষক ১ বিঘা জমির জন্য ২০ কেজি গম, ২ কেজি ভুট্টা, এক কেজি সরিষা, দেড় কেজি সূর্যমুখী, ১০ কেজি চিনাবাদাম, এক কেজি তিল, ৫ কেজি শীতকালীন মুগ, এককেজি পেঁয়াজ বীজ পাবেন। এছাড়া ২০ কেজি ডিএপি ও ১০ কেজি এমওপি সার পাবে গমের জন্য। ভুট্টার জন্য পাবে ২০ কেজি ডিএপি ও ১০ কেজি এমওপি সার। সরিষার জন্য পাবে ২০ কেজি ডিএপি ও ১০ কেজি এমওপি সার। সূর্যমুখীর জন্য পাবে ২০ কেজি ডিএপি ও ১০ কেজি এমওপি সার। চিনাবাদামের জন্য ১০ কেজি ডিএপি ৫ কেজি এমওপি সার, তিলের জন্য ২০ কেজি ডিএপি ও ১০ কেজি এমওপি সার, মুগের জন্য ১০ কেজি ডিএপি ও ১০ কেজি এমওপি সার এবং পেঁয়াজের জন্য ২০ কেজি ডিএপি ও ১০ কেজি এমওপি সার দেওয়া হবে।

আক্রান্ত ৫০ হাজার ছাড়াল: শনাক্ত সর্বোচ্চ ২৯১১, মৃত্যু ৩৭

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে করোনাভাইরাসের (কোভিড-১৯) সংক্রমণে ৩৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। নতুন শনাক্ত হয়েছেন সর্বোচ্চ ২ হাজার ৯১১ জন।

দেশের তুলনায় বিদেশে বাংলাদেশির মৃত্যু বেশি

সংবাদ অনলাইন ডেস্ক

image

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে দেশের তুলনায় বিদেশের মাটিতে বেশি বাংলাদেশিদের মৃত্যু হয়েছে। দিন দিন এর পরিমাণ বাড়ছে। ইতোমধ্যে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে বাংলাদেশি মৃত্যুর সংখ্যা ৮শ’ ছাড়িয়ে গেছে। তবে মোট কতজন মারা গেছেন নানামুখী সীমাবদ্ধতার কারণে কারও কাছেই সুনির্দিষ্ট তথ্য বা পরিসংখ্যান নেই। অন্যদিকে সরকারি হিসেবে গত সোমবার পর্যন্ত দেশে ৬৭২ জন করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন।

ন্যাশনাল ব্যাংকের ৬০ লাখ টাকা উদ্ধার: অস্ত্রসহ গ্রেফতার ৪

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

রাজধানীর কোতোয়ালী থানার ইসলামপুর শাখার ন্যাশনাল ব্যাংক থেকে ৮০ লাখ টাকা ছিনতাইয়ের ঘটনায় ৬০ লাখ টাকা উদ্ধার ও দুটি বিদেশি অস্ত্রসহ চারজনকে গ্রেফতার করেছে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)।

sangbad ad

সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী নাসিম করোনাভাইরাস আক্রান্ত

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী আওয়ামী লীগ নেতা মোহাম্মদ নাসিম করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। জ্বর-কাশিসহ করোনাভাইরাসের লক্ষণ নিয়ে সোমবার দুপুরে নাসিমকে রাজধানীর শ্যামলীর বাংলাদেশ স্পেশালাইজড হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানেই করোনাভাইরাস পরীক্ষার জন্য তার নমুনা সংগ্রহ করা হয়।

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোর প্রশাসনিক দফতর খোলা রাখার অনুমতি

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

করোনা সংক্রমণের কারণে প্রায় আড়াই মাস ধরে বন্ধ থাকা শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের অফিস

খাদ্য উৎপাদন আরও বাড়াতে হবে : কৃষিমন্ত্রী

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

কৃষিমন্ত্রী ড. আবদুর রাজ্জাক বলেছেন, ‘করোনার কারণে সম্ভাব্য খাদ্য সংকট

অন্তঃসত্ত্বা নারীদের অগ্রাধিকারভিত্তিতে করোনা পরীক্ষা করার নির্দেশ হাইকোর্টের

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

সরকারি-বেসরকারি সব হাসপাতালে অন্তঃসত্ত্বা নারীদের অগ্রাধিকার ভিত্তিতে করোনা টেস্টসহ অন্যান্য সুচিকিৎসা প্রদানের নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট।

দেশ ভাগ হচ্ছে রেড, ইয়েলো ও গ্রিন জোনে

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

করোনা মহামারির কারণে সংক্রমণ এবং মৃত্যুর হার অনুযায়ী সারা দেশকে তিনটি জোন-এ ভাগ করা হচ্ছে। এগুলো হলো; রেড, গ্রিন ও ইয়েলো জোন।

সরকারী অফিসে একসঙ্গে ২৫ শতাংশ কর্মকর্তা অফিসে থাকবেন

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

করোনার ঝুকি উপেক্ষা করে সব অফিস খুলে দেয়ার পর এখন সরকারী অফিসগুলোতে

sangbad ad