• banlag
  • newspaper
  • epaper

ঢাকা , বুধবার, ১২ আগস্ট ২০২০

 

ঈদের দিন করোনায় গেলো ২১ প্রান

নিউজ আপলোড : ঢাকা , শনিবার, ০১ আগস্ট ২০২০

সংবাদ :
  • নিজস্ব বার্তা পরিবেশক
image

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ২১ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ পর্যন্ত দেশে তিন হাজার ১৩২ জনের মৃত্যু হলো করোনায়। এর আগে সর্বশেষ গত ২৬ মে ২৪ ঘণ্টায় ২১ জনের মৃত্যু হয়।

শনিবার কোভিড-১৯ সম্পর্কিত নিয়মিত স্বাস্থ্য বুলেটিনে এ তথ্য জানান স্বাস্থ্য অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (প্রশাসন) অধ্যাপক নাসিমা সুলতানা।

তিনি জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে আট হাজার ৬৬৯টি। নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে আট হাজার ৮০২টি। এখন পর্যন্ত ১১ লাখ ৮৫ হাজার ৬১১টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে।

নমুনা পরীক্ষার মধ্যে গত ২৪ ঘণ্টায় শনাক্ত হয়েছে দুই হাজার ১৯৯ জন। এখন পর্যন্ত দুই লাখ ৩৯ হাজার ৮৬০ জন শনাক্ত হয়েছে। ২৪ ঘণ্টায় শনাক্তের হার ২৪ দশমিক ৯৮ শতাংশ। ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন এক হাজার ১১৭ জন। এখন পর্যন্ত সুস্থ এক লাখ ৩৬ হাজার ২৫৩ জন।

গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যুবরণকারীদের মধ্যে ১৬ জন পুরুষ এবং পাঁচ জন নারী। এখন পর্যন্ত মৃত্যুবরণকারীদের মধ্যে পুরুষ দুই হাজার ৬৬২ জন এবং নারী ৬৭০ জন।

বয়স বিশ্লেষণে দেখা যায়, ৮১ থেকে ৯০ বছরের মধ্যে এক জন, ৭১ থেকে ৮০ বছরের মধ্যে পাঁচ জন, ৬১ থেকে ৭০ বছরের মধ্যে আট জন, ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে চার জন, ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে এক জন, ১১ থেকে ২০ বছরের মধ্যে দুই জন।

বিভাগ বিশ্লেষণে দেখা যায়, মৃত্যুবরণকারীদের মধ্যে ঢাকা বিভাগে ৯ জন, চট্টগ্রাম বিভাগে তিন জন, খুলনা বিভাগে পাঁচ জন, রাজশাহী বিভাগে এক জন, বরিশাল বিভাগে দুই জন এবং ময়মনসিংহ বিভাগে এক জন। ২৪ ঘণ্টায় হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করেছেন ২০ জন এবং একজন বাড়িতে মৃত্যুবরণ করেছেন।

নাসিমা সুলতানা জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় আইসোলেশনে রাখা হয়েছে ৭৭১ জনকে। বর্তমানে আইসোলেশনে আছেন ১৮ হাজার ৫৮১ জন। ২৪ ঘণ্টায় আইসোলেশন থেকে ছাড়া পেয়েছেন ৫০০ জন, এখন পর্যন্ত ছাড়া পেয়েছেন ৩২ হাজার ৯০০ জন। এখন পর্যন্ত আইসোলেশন করা হয়েছে ৫১ হাজার ৪৮১ জনকে। প্রাতিষ্ঠানিক ও হোম কোয়ারেন্টিন মিলে ২৪ ঘণ্টায় কোয়ারেন্টিন করা হয়েছে এক হাজার ৬৫৫ জনকে। এখন পর্যন্ত কোয়ারেন্টিন করা হয়েছে চার লাখ ৩৮ হাজার ১৪১ জনকে। কোয়ারেন্টিন থেকে গত ২৪ ঘণ্টায় ছাড়া পেয়েছেন দুই হাজার ২০৭ জন। এখন পর্যন্ত ছাড়া পেয়েছেন তিন লাখ ৮১ হাজার ৮৬৯ জন। বর্তমানে মোট কোয়ারেন্টিনে আছেন ৫৬ হাজার ২৭২ জন।

রপ্তানি বাড়লেও রয়েছে শঙ্কা

রেজাউল করিম

image

করোনাভাইরাসে বিপর্যস্ত পরিস্থিতিতে জুন মাসে রপ্তানি আয় তলানিতে নেমেছিল। এরপর জুলাই মাসে তা ঘুরে দাঁড়িয়েছে। জুলাই মাসে

শোকের মাস

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

পঁচাত্তরের ১৫ আগস্ট কালরাতে যারা বঙ্গবন্ধুকে সপরিবারে হত্যা করে ভেবেছিল ইতিহাসের গতি উল্টে দেবে, বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন নস্যাৎ করে

বঙ্গবন্ধু সম্পর্কে জানলে আমাদের মধ্যে মাতৃভূমির প্রতি ভালোবাসা তৈরি হবে

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

আমরা যদি বঙ্গবন্ধুর জীবন সম্পর্কে জানতে পারি তবে আমাদের মধ্যে মাতৃভূমির প্রতি ভালোবাসা এবং নেতৃত্ববোধ তৈরি হবে। কথাগুলো

sangbad ad

জাতিয় শোক দিবস উপলক্ষে ডিইউজের ৩ দিনের কর্মসূচি

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের শাহাদত বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে ৩ দিনের পৃথক কর্মসূচি গ্রহণ করেছে ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়ন (ডিইউজে)।

প্রণব মুখার্জির আরোগ্য কামনা করেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

গুরুতর অসুস্থ ভারতের সাবেক রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জির দ্রুত আরোগ্য কামনা করেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ. কে . আব্দুল মোমেন।

জাতিসংঘ মহাসচিব এন্তোনিও গুতেরেস এর বাণী

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

এই বছরের আন্তর্জাতিক যুব দিবসের প্রতিপাদ্য হলো বৈশ্বিক কার্যক্রমে যুব সম্পৃক্ততা যা তরুণদের কণ্ঠস্বর এবং তাদের সক্রিয়তা যেভাবে একটি পার্থক্য রচনা করছে এবং আমাদের চলমান বিশ্বকে জাতিসংঘের সনদের মান এবং দৃষ্টিভঙ্গির কাছাকাছি নিয়ে আসছে সেগুলোকে আলোকপাত করে।

করোনাভাইরাস মহামারী থেকে মুক্তি চেয়ে প্রাার্থনা

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

গীতাযজ্ঞ, প্রার্থনা, ঐতিহাসিক মিছিল আর যথাযথ মর্যাদা ও হিন্দু ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যের মধ্য দিয়ে ভগবান শ্রীকৃষ্ণের জš§তিথি ‘ শুভ জš§াষ্টমী’ উৎসব পালিত হয়েছে।

খাগড়াছড়িতে জাবারাং এর কমিউনিটি এন্ট্রি সভা অনুষ্ঠিত

খাগড়াছড়ি প্রতিনিধি

image

খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলার স্থানীয় বেসরকারী উন্নয়ন সংস্থা ‘জাবারাং’ এর “আমাদের জীবন, আমাদের স্বাস্থ্য, আমাদের ভবিষ্যত” প্রকল্পের আওতায় পানছড়ি উপজেলায় লতিবান ইউনিয়নে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

উন্নয়নের নামে সিলেটের মেয়রের স্বেচ্ছাচারিতা

বিশেষ প্রতিনিধি

image

সিলেট নগরবাসীকে জলাবদ্ধতা থেকে মুক্তি দিতে গত ১১ বছরে ব্যয় করা হয় প্রায় দেড় হাজার কোটি টাকা। কিন্তু তাতেও মুক্তি মেলেনি নগরবাসীর।