• banlag
  • newspaper
  • epaper

ঢাকা , শনিবার, ১৮ জানুয়ারী ২০২০

 

ইরাকে ফের সহিংসতায় নিহত ১১ : কারফিউ জারি

নিউজ আপলোড : ঢাকা , বৃহস্পতিবার, ০৩ অক্টোবর ২০১৯

সংবাদ :
  • সংবাদ ডেস্ক
image

সংঘর্ষে আহত এক তরুণকে উদ্বার করে নিয়ে যাওয়া হয়

ইরাকের রাজধানী বাগদাদে ৩ অক্টোবর বৃহস্পতিবার থেকে অনির্দিষ্টকালের জন্য কারফিউ জারি করা হয়েছে। রাষ্ট্রীয় দুর্নীতি, বেকারত্ব ও অদক্ষতার বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানাতে গত মঙ্গলবার (১ অক্টোবর) রাজধানী বাগদাদে সরকারবিরোধী ব্যাপক বিক্ষোভ করে দেশটির জনগণ। দু’দিন ধরে চলমান এ সহিংস বিক্ষোভে ৯ জন নিহত হয়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে বৃহস্পতিবার রাজধানীজুড়ে কারফিউ জারি করেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী আদেল আবদেল মাহদি। কারফিউ ঘোষণার পর আবারও সংঘটিত সহিংসতায় আরও ১১ জন নিহত হন। দক্ষিণাঞ্চলে নিহতদের নিয়ে দেশটিতে দু’দিন আগে শুরু হওয়া সরকারবিরোধী বিক্ষোভ ও সহিংসতায় মোট নিহতের সংখ্যা ২০-এ দাঁড়াল। ২ অক্টোবর বুধবার মধ্যরাতে ইরাকের দক্ষিণাঞ্চলীয় দুটি শহরে সহিংসতার এসব ঘটনা ঘটে বলে জানিয়েছে পুলিশ ও মেডিকেল সূত্রগুলো। বার্তা সংস্থা রয়টার্সের এক প্রতিবেদনের বরাতে এ তথ্য জানা গেছে।

মঙ্গলবার শুরু হওয়া সরকারবিরোধী এ বিক্ষোভটি দেশজুড়ে ছড়িয়ে পড়ে। এ সময় বিভিন্ন স্থানে নিরাপত্তা বাহিনীর সঙ্গে বিক্ষোভকারীদের সংঘর্ষ সহিংসতায় রূপ নেয়। এ পরিস্থিতিতে বিক্ষোভ দমনে দেশটির প্রধানমন্ত্রী আদেল আবদেল মাহদি বৃহস্পতিবার স্থানীয় সময় ভোর ৫টা থেকে বাগদাদজুড়ে যে কোন বিক্ষোভ ও সমাবেশ নিষিদ্ধ ঘোষণা করেন।

নাসিরিয়ায় বিক্ষোভাকরীদের সঙ্গে নিরাপত্তা বাহিনীর রাতভর বিক্ষিপ্ত সংঘর্ষের সময় ৬ বিক্ষোভকারী ও পুলিশের এক সদস্য নিহত হন। আমারায় আরও ৪ জন নিহত হয়েছেন বলে সূত্রগুলো রয়টার্সকে জানায়। এর আগ পর্যন্ত রাজধানী বাগদাদসহ দেশজুড়ে সরকারবিরোধে বিক্ষোভ সহিংসতার ৭ জন নিহত ও কয়েকশ’ ব্যক্তি আহত হয়েছিলেন। সহিংসতা ছড়িয়ে পড়ার পর বাগদাদ ও দক্ষিণাঞ্চলীয় তিনটি শহরে কারফিউ জারি করে সরকার। বৃহস্পতিবার ভোরে কারফিউ শুরু হওয়ার পর বাগদাদের কেন্দ্রীয় এলাকায় সৈন্যরা টহল শুরু করে। এর মধ্যেও রাজধানীর কয়েকটি এলাকায় বিক্ষিপ্ত বিক্ষোভ চলছিল বলে রয়টার্সের এক প্রত্যক্ষদর্শী সাংবাদিক জানান।

বেকারত্ব, অদক্ষতা ও দুর্নীতির বিস্তার নিয়ে ক্ষুব্ধ কয়েক প্রতিবাদকারী বাগদাদে ছোট একটি বিক্ষোভ শুরু করেছিলেন। বিক্ষোভ দমনে নিরাপত্তা বাহিনী টিয়ার শেল ও জলকামান ব্যবহার করার পর বিক্ষোভ সহিংস রূপ নেয়। পরে নিরাপত্তা বাহিনীর গুলিতে অন্তত দু’জন নিহত হন। এরপরই বিক্ষোভ সারাদেশে ছড়িয়ে পড়ে। বুধবার দিনভর ব্যাপক বিক্ষোভে এক শিশুসহ পাঁচজন নিহত হন। এর পাশাপাশি বিক্ষোভকারী ও পুলিশসহ কয়েকশ’ ব্যক্তি আহত হন।

গণহত্যার অভিযোগে মায়ানমারের বিরুদ্ধে পদক্ষেপের সিদ্ধান্ত ১৩ জানুয়ারি

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

রোহিঙ্গাদের গণহত্যার অভিযোগে মায়ানমারের বিরুদ্ধে গাম্বিয়ার করা মামলায় মায়ানমারের বিরুদ্ধে কি ধরনের পদক্ষেপ গ্রহন করা হবে

ফেসবুক তৈরি ছিল ‘মারাত্মক ভুল’ : জুকারবার্গ

সংবাদ ডেস্ক

image

এতদিন নানা জায়গায় বিভিন্ন সময় একাধিকবার লেখালেখি, আলোচনা হয়েছে এ বিষয়টি নিয়ে। এবার এ নিয়ে মুখ খুললেন স্বয়ং ফেসবুকের প্রতিষ্ঠাতা

সৌদি ঢেকেছে বরফে

সংবাদ ডেস্ক

image

মরুভূমির দেশ সৌদি আরবে গত তিন দিন ধরে তীব্র শীতের সঙ্গে পড়ছে বরফ। মরুভূমি ও সংলগ্ন পাহাড় বিস্ময়করভাবে ঢেকে গেছে শুভ্র

sangbad ad

ইরানে দ্বিতীয় দিনেও জোরদার বিক্ষোভ

সংবাদ ডেস্ক

image

ইউক্রেনের যাত্রীবাহী বিমান ভূপাতিত করার স্বীকারোক্তি দেয়ার পর ইরানে টানা দ্বিতীয় দিনের মতো বিক্ষোভ অব্যাহত রয়েছে। ১২ জানুয়ারি

‘মিথ্যা’ বলায় তেহরানে বিক্ষোভ

সংবাদ ডেস্ক

image

ইউক্রেনীয় বিমানটিকে ভুলবশত ক্ষেপনাস্ত্রের আঘাতে নামানোর কথা প্রথমে অস্বীকার করায় কর্তৃপক্ষের ওপর ক্ষুব্ধ কয়েক শ’ ইরানি তেহরানের

ওমানের সুলতান কাবুস বিন সাঈদের মৃত্যু

সংবাদ ডেস্ক

image

মধ্যপ্রাচ্যের তেলসমৃদ্ধ দেশ ওমানের সুলতান কাবুস বিন সাইদ আল সাইদের মৃত্যুর তথ্য নিশ্চিত করেছে দেশটির সরকার। প্রাসাদের এক বিবৃতিতে

সোলেইমানি হত্যার জবাব যেখানে দিতে পারে ইরান

সংবাদ ডেস্ক

image

ইরানের পররাষ্ট্রনীতি ও সামরিক ক্ষেত্রে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ও প্রভাবশালী জেনারেল কাসেম সোলাইমানিকে হত্যার পর বৈশ্বিক তেল সরবরাহের

ট্রাম্পের নির্দেশে ইরানি জেনারেল কাসেম সোলেইমানিসহ নিহত আট

সংবাদ ডেস্ক

image

ইরাকের রাজধানী বাগদাদে মার্কিন ড্রোন (চালকবিহীন বিমান) হামলায় নিহত হয়েছেন ইরানের সেনাবাহিনীর জেনারেল তথা ইসলামি

অস্ট্রেলিয়ার দাবানলে পুড়েছে প্রায় ২৫০ বাড়ি

সংবাদ ডেস্ক

image

অস্ট্রেলিয়ার উপকূলের দিকে এগিয়ে আসা দাবানলে প্রায় আড়াইশ’ বাড়ি পুড়ে গেছে। এর মধ্যে ভিক্টোরিয়া অঙ্গরাজ্যের ইস্ট জিপসল্যান্ডে

sangbad ad