• banlag
  • newspaper
  • epaper

ঢাকা , বুধবার, ০৩ জুন ২০২০

 

সময়কে কাজে লাগাও

নিউজ আপলোড : ঢাকা , সোমবার, ১৮ মে ২০২০

সংবাদ :
  • শিক্ষা ডেস্ক
image

আমাদের অনেকই আছি সময়ের সঠিক ব্যবহার করি না। অকাজে সময় নষ্ট করি। বিশেষ করে আমাদের শিক্ষার্থীদের উচিত সময় নষ্ট না করে পড়াশোনায় মনোযোগী হওয়া। কারণ ছাত্র জীবনে মন দিয়ে পড়াশোনা করলে সাফল্য আসবেই। অতীতের সময়ের চেয়ে বর্তমানের সময়গুলো ভিন্ন প্রকৃতির। খুব দ্রুতই পরিবর্তিত হচ্ছে সমাজ আর সামাজিক মূল্যবোধ। প্রযুক্তিগত পরিবর্তনের স্রোতে বদলে যাচ্ছে সব কিছু।

ছাত্রজীবনে বিনোদনের প্রয়োজন রয়েছে। আগেও ছিল। কিন্তু প্রযুক্তি গত পরিবর্তন বিনোদনের মাত্রাটি আমূল পাল্টে দিয়েছে। যোগাযোগের ক্ষেত্রে ঘটেছে বৈপ্লবিক পরিবর্তন। এতে জীবনের সুযোগ-সুবিধা বেড়েছে অনেক। সেই সঙ্গে সমস্যার মাত্রাটাও বেড়েছে। প্রায় সব সময় গানে ডুবে থাকা কিংবা রাত জেগে মোবাইলে কথা বলা, ইন্টারনেটে অপ্রয়োজনে সময় নষ্ট করা কিংবা বন্ধুদের ডাকে যখন তখন যেখানে সেখানে ছুটে যাওয়া জীবনের সময়কে নষ্ট করে দিতে পারে নিজের অসচেতনতার মধ্যেই। বন্ধু প্রয়োজন আছে, আর বন্ধুত্ব গড়ে তোলা কিংবা বন্ধুত্ব তৈরি হওয়ার সেরা সময়টি হচ্ছে ছাত্রজীবন।

এ সময়ের বন্ধুত্ব প্রত্যেকের ব্যত্তিপ্তজীবনেই কিছু না কিছু প্রভাব ফেলে, যার ফলাফল হয়ে থাকে দীর্ঘমেয়াদি। সুতরাং বন্ধুত্ব গড়ে তোলা কিংবা বন্ধুত¦ রক্ষার ক্ষেত্রেও শিক্ষার্থী হিসেবে সাবধানে পা ফেলতে হবে।

কেননা, সব বন্ধুর ব্যক্তিগত বৈশিষ্ট্য একরকম নয়। তাদের মধ্যে কেউ থাকতে পারে সুপথে, কেউ বিপথে।

শিক্ষাজীবনের সময়কে কাজে লাগাতে হবে নিজের মতো করে। প্রতিযোগিতামূলক জীবনের প্রতিটি পদক্ষেপে অবশ্যই সময়ের সদ্ব্যবহার করতে হবে। প্রয়োজনে প্রাত্যহিক কাজের পরিকল্পনা লিখিতভাবে তৈরি করে নিতে হবে, যার মধ্যে সবচেয়ে প্রাধান্য পাবে পড়াশোনা।

শিক্ষার্থীদের জীবন তথা ছাত্রজীবন হচ্ছে জীবনের সবচেয়ে সুন্দরতম সময়। কিন্তু এই সুন্দরতম সময়েও সব সময় মনে রাখতে হবে জীবন গড়ার কথা। আর প্রতিনিয়ত সংগ্রামই হচ্ছে জীবন গড়ার মূলকথা। এ জন্য তোমাকে দীর্ঘমেয়াদি পরিকল্পনা করতে হবে। যারা তোমার চেয়ে বয়সে বড়, অভিজ্ঞতায় সমৃদ্ধ তাদের সঙ্গে আলোচনা করো, মতবিনিময় করো বন্ধুদের সঙ্গে। প্রতিদিনের সংবাদপত্রে জীবন সংগ্রাম, অধ্যবসায় ও ব্যক্তিগত সাফল্যের সংবাদ ফিচারগুলো পড়বে।

আমাদের দেশে বহু শিক্ষার্থী রয়েছে, যারা নানা ক্ষেত্রে সুযোগ-বঞ্চিত। অর্থনৈতিক, পারিবারিক ও সামাজিক ক্ষেত্রে অনেক শিক্ষার্থীই বঞ্চিত। এদের মধ্যে অনেকেই প্রতিনিয়ত সংগ্রাম করে তাদের শিক্ষাজীবনকে পরিচালনা করে। দরিদ্র ও সুযোগবঞ্চিত অনেক শিক্ষার্থীই জীবনকে অর্থবহ এবং সফল করার জন্য সব শক্তি নিয়োগ করে। প্রবল প্রচেষ্টায় সামান্য সুযোগকে আঁকড়ে ধরেও সাফল্যকে ছিনিয়ে আনে তারা। আমরা প্রায়শই তাদের কথা জানতে পারি।

তোমরা যারা শিক্ষার্থী, জীবন ও সমাজকে গড়ার জন্য তোমাদের এখনো রয়েছে পর্যাপ্ত সময়। তবে সময় থেমে নেই। প্রতিনিয়তই তা হারিয়ে যাচ্ছে। মূল্যবান এ সময় কাজে লাগাতে হলে তোমাদের সক্রিয় হতে হবে এখনই। তোমাদের প্রতিদিনের সময়গুলো কাজে লাগাতে হবে সুশৃঙ্খলভাবে-কার্যকরভাবে। এর ফলে তোমাদের অবারিত স্বাধীনতার পরিবর্তে আত্মনিয়ন্ত্রণের পথকেই বেছে নিতে হবে। প্রতিদিনের জীবনযাত্রায় এবং বন্ধুবান্ধবের সাহচর্যে নতুন নতুন বিষয় ও নতুন অভিজ্ঞতার মুখোমুখি হবে তুমি।

কিন্তু প্রতিটি বিষয়ের ভালোমন্দ সতর্কভাবে বিচার করতে হবে তোমাকেই। তোমার সব বন্ধুই হয়তো ভালো কাজগুলো বেছে নিতে পারেনি।

সেক্ষেত্রে তার অন্ধ অনুকরণ না করে ভালোটিকেই বেছে নিতে হবে। তোমরা যদি জীবনের এই সোনাঝরা সময়গুলো অপচয় না করে প্রকৃত কাজে ব্যয় করতে পার- তাহলে দেখবে তোমার আগামী দিনগুলো হয়ে উঠবে পুরোপুরি সাফল্যমণ্ডিত।

নতুন ‘কারিকুলাম’ পেছাল

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

আগামী শিক্ষাবর্ষ থেকে নতুন ‘কারিকুলামে, পাঠদান শুরু কথা থাকলেও করোনাভাইরাস মহামারীর কারণে তা এক বছর পেছানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। ২০২১ সালে প্রাক-প্রাথমিক থেকে দ্বাদশ শ্রেণি পর্যন্ত নতুন কারিকুলামে শিক্ষাক্রম চালুর পূর্ব নির্ধারিত লক্ষ্যমাত্রা বাস্তবায়নে করণীয় নির্ধারণে মঙ্গলবার রাজধানীর আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ইনস্টিটিউটে এক সভায় এই সিদ্ধান্ত হয়।

এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় সবচেয়ে বেশী পাশ রাজশাহী বোর্ডে

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

এবারের এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় মোট ১১টি শিক্ষাবোর্ডের (নয়টি সাধারণ শিক্ষা বোর্ড, মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ড এবং কারিগরি শিক্ষা বোর্ড) মধ্যে এবার সবচেয়ে বেশী পাশ করেছে রাজশাহী শিক্ষাবোর্ডের শিক্ষার্থীরা।

পাসের হার ও জিপিএ-৫, ছাত্রীরা এগিয়ে

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় এবারও জিপিএ-৫ ও পাসের হারের দিক থেকে ছাত্রদের পেছনে ফেলেছে ছাত্রীরা এগিয়ে রয়েছে। ফলাফল বিশ্লেষণে এমনই তথ্য জানা যায়। এবার পরীক্ষায় জিপিএ-৫ পাওয়া এক লাখ ৩৫ হাজার ৮৯৮ শিক্ষার্থীর মধ্যে ৬৫ হাজার ৭৫৪ জন ছাত্র এবং ৭০ হাজার ১৪৪ জন ছাত্রী রয়েছে।পাসের হার ৮২ দশমিক ৮৭ শতাংশ।

sangbad ad

এসএসসি পরীক্ষার্থীদের পুনঃনিরীক্ষার আবেদন সোমবার থেকে ৭ জুনের মধ্যে

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল প্রকাশের ঠিক পরের দিন অর্থাৎ ১ জুন

একাদশ শ্রেণিতে ভর্তি বিজ্ঞপ্তি এখনই নয়

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

প্রতিবছর এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল প্রকাশের এক সপ্তাহ পরে একাদশ শ্রেণিতে

মির্জাপুর ক্যাডেট কলেজে শতভাগ জিপিএ-৫

প্রতিনিধি, মির্জাপুর (টাঙ্গাইল)

image

এবারের এসএসসি পরীক্ষায় শতভাগ জিপিএ-৫ পাওয়ার মধ্যদিয়ে সাফল্যের ধারাবাহিকতা ধরে রাখলো টাঙ্গাইলের মির্জাপুর ক্যাডেট কলেজ। ৫২ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে সবাই জিপিএ-৫ পেয়েছে।

মাইলস্টোন কলেজে শতভাগ পাস

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

প্রতি বছরের ন্যায় ২০২০ সালেও এসএসসি পরীক্ষার ফলাফলে অসাধারণ সাফল্যের ধারা বজায় রেখেছে রাজধানীর উত্তরা মডেল টাউনে অবস্থিত মাইলস্টোন কলেজ। এবছর মাইলস্টোন কলেজ থেকে বাংলা ও ইংরেজি মাধ্যমে ১৩৮১ জন শিক্ষার্থী এসএসসি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে এবং ১৩৮১ জনই জন পাস করে অর্থাৎ পাসের হার ১০০%। পাসকৃতদের মধ্যে জিপিএ-৫ পেয়েছে ৯৩৫ জন শিক্ষার্থী। জিপিএ-৫ অর্জনের হার ৬৭.৭০%।

১০৪ প্রতিষ্ঠানের কেউ পাস করেনি

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় এবার কেউ পাস করেনি এমন প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা ১০৪টি । এসএসসি সমমানের পরীক্ষার ঘোষিত ফল থেকে এ তথ্য জানা গেছে। সকাল সাড়ে ১০টায় গণভবনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে এবারের এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষা ফলের অনুলিপি তুলে দেওয়া হয়। এর পর সেখানে ফলের বিভিন্ন দিক ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে তুলে ধরেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি।

শতভাগ পাস শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের সংখ্যা বাড়ছে

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

এবার মাধ্যমিক (এসএসসি) পরীক্ষায় শতভাগ পাস করেছে এমন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের সংখ্যা গত বছরের চেয়ে বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩ হাজার ২৩টি। গত বছর যা ছিল দুই হাজার ৫৮৩টি। চলতি বছরের এসএসসি পরীক্ষার ঘোষিত ফল থেকে এমন তথ্য জানা গেছে। শতভাগ পাস করা প্রতিষ্ঠান বিষয়ে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, এটা একটা ভালো দিক যে শতভাগ পাস করা শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের সংখ্যা বৃদ্ধি পেয়েছে।

sangbad ad