• banlag
  • newspaper
  • epaper

ঢাকা , রবিবার, ২১ অক্টোবর ২০১৮

 

বাণিজ্য সম্ভাবনার দেশ নেপাল

উদ্যোগতাদের ভুল ধারণাই বড় বাধা

নিউজ আপলোড : ঢাকা , রবিবার, ৩১ ডিসেম্বর ২০১৭

সংবাদ :
  • রোকন মাহমুদ, নেপাল থেকে
image

নেপালে বাংলাদেশী পণ্যের বিপুল সম্ভাবনা রয়েছে। ইতিমধ্যেই ৭৮ ধরণের পণ্য রফতানি হচ্ছে দেশটিতে। গত চার বছরে রফতানির পরিমাণ চার গুন হয়েছে বলে জানিয়েছেন নেপালে বাংলাদেশী রাষ্ট্রদূত মাশফি বিনতে শামস। তবে কিছু ভুল ধারনার কারণে বাংলাদেশের ব্যবসায়ীরা এখানে আসতে আগ্রহী নন বলেও তিনি জানান।

গত শুক্রবার (২৯ ডিসেম্বর) নেপালের কাঠমান্ডুতে বাংলাদেশী রাষ্ট্রদূতের কার্যালয়ে নেপালে সফররত মোবাইল, ইলেকট্রনিক্স এন্ড অটোমোবাইল জার্নালিস্টস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (মিয়াজাব) সঙ্গে এক বৈঠকে তিনি এ কথা বলেন।

রাষ্ট্রদূত মাশফি বিনতে শামস বলেন, বাংলাদেশের ব্যবসায়ীদের মধ্যে একটা ভুল ধারণা আছে যে স্থলপথে পণ্য রফতানিতে অনেক জটিলতা ও ঝামেলা রয়েছে। ভারতের ভেতর দিয়ে পণ্য যাতায়াতে ভারত ঝামেলা সৃষ্টি করে। কিন্তু এই ধারণা একেবারেই ভুল। বাংলাবান্ধায় নেপালের ওয়্যার হাউস আছে। সেখান থেকে সরাসরি কাঠমান্ডুতে পণ্য চলে আসতে পারে। মাঝে ভারতে কোনো চেক আপ করা হয় না।

রাষ্ট্রদূত বলেন, আরেকটি ধারণা রয়েছে বাংলাদেশীদের মধ্যে। সেটি হলো নেপালের মানুষের মাথাপিছু আয় কম। সুতরাং এখানে ব্যবসা ভালো হবে না। কিন্তু আপনারা দেখেছেন, নেপালীরা সৌখিন জীবন যাপন করেন। তারা ভালো পণ্য কেনেন। দেশটি শতভাগ আমদানি নির্ভর। এর মধ্যে ৭০ শতাংশ পণ্য আসে ভারত থেকে। বাকিটা চীনসহ অন্যান্য দেশ থেকে আসে। সুতরাং বাংলাদেশী পণ্যের জন্য এখানে বিশাল সম্ভাবনা অপেক্ষা করছে।

ইতিমধ্যেই বাংলাদেশের ৭৮ টি পণ্য নেপালে বিক্রি হচ্ছে জানিয়ে তিনি বলেন, এক সময় প্রতি বছর শুধু নির্দিষ্ট পরিমাণ পাট বাংলাদেশ থেকে এদেশে আসতো। কিন্তু এখন অনেক পণ্য আসছে। গত ২০১৩-১৪ অর্থ বছরে ১০ মিলিয়ন ডলারের পণ্য এখানে এসেছে। গত অর্থবছরে এটি চার গুন বৃদ্ধি পেয়ে ৪৭ মিলিয়ন ডলার হয়েছে। এখানে ঔষধ, ইলেকট্রনিক্স, অটোমোবাইল, ফার্নিচার, এগ্রো ফুড ভালো চলছে। পাশাপাশি প্লাস্টিক, হোম টেক্সটাইল, নির্মাণ সামগ্রীসহ বিভিন্ন পণ্যের বড় সম্ভাবনা রয়েছে। আমরা এখানে সিঙ্গেল কান্ট্রি এক্সপোর আয়োজন করছি। ব্যবসায়ীদের এখানে আমন্ত্রণ জানাচ্ছি। আপনারা এখানে আসুন, আমরাই গ্রাহক ধরিয়ে দিব।

রাষ্ট্রদূত বলেন, নেপালে দীর্ঘদিন ধরে চলে আসা রাজনৈতিক অস্থিরতার অবসান ঘটতে যাচ্ছে। এখন দ্রুত অর্থনৈতিক উন্নয়ন হবে। প্রচুর অবকাঠামো নির্মাণ হতে যাচ্ছে। এই সুযোগ বাংলাদেশি ব্যবসায়ীরা নিতে। বাংলাদেশি পণ্য এখানে প্রতিযোগী সক্ষম। নেপালীদেরও ধারণা নেই বাংলাদেশি পণ্য সম্পর্কে। তবে এই ধারণার পরিবর্তন হচ্ছে বলেও তিনি জানান।

বৈঠকে মিয়াজাবের উপদেষ্টা উদয় হাকিম, সভাপতি দৈনিক জনকণ্ঠের সিনিয়র রিপোর্টার এম শাহজাহান, সাধারণ সম্পাদক দৈনিক ভোরের ডাকের সিনিয়র রিপোর্টার ইমরুল কাওছার ইমনসহ ২১ জন বাংলাদেশি সাংবাদিক অংশ নেয়।

আরও বেড়েছে বাণিজ্য ঘাটতি

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

গত অর্থবছরের মত চলতি অর্থবছরের শুরুতেও পণ্য বাণিজ্যে বড় ঘাটতি দেখা দিয়েছে। অর্থবছরের

শ্রমিকদের ন্যূনতম মজুরির বিষয়ে বিভ্রান্তি ছড়ানো হচ্ছে : বিজিএমইএ সভাপতি

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

তৈরি পোশাক শ্রমিকদের ন্যূনতম মজুরি ৮ হাজার টাকা নির্ধারণ করেছে সরকার। মালিক-শ্রমিক সব পক্ষ

শিঘ্রই চালু হচ্ছে ডাক বিভাগের সেবা "নগদ"

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

image

শীঘ্রই চালু হতে যাচ্ছে বাংলাদেশ সরকারের ডাক বিভাগের ডিজিটাল ফাইন্যান্সিয়াল সার্ভিস “নগদ”। অধিকতর

sangbad ad

হঠাৎ বড় উল্লম্ফন রপ্তানি আয়ের প্রবৃদ্ধিতে

রোকন মাহমুদ

image

দেশের পণ্য রপ্তানিতে বড় প্রবৃদ্ধি হয়েছে। চলতি ২০১৮-১৯ অর্থবছরের প্রথম তিন মাসে

পাঁচ বছরে নতুন ব্যাংকের খেলাপি ঋণ ২৪০০ কোটি টাকা

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

image

অনুমোদনের পাঁচ বছরের মাথায় খেলাপি ঋণের খাতায় নাম লিখিয়েছে নতুন নয়টি নতুন

মানুষের শ্রম ও মেধাকে সম্পদে পরিণত কর হবে : কৃষিমন্ত্রী

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

image

বাংলাদেশের বিশাল জনসংখ্যাকে অর্থনৈতিক উন্নয়নের মূল চালিকা শক্তি হিসেবে উল্লেখ করে কৃষিমন্ত্রী

বাণিজ্যিক ভিত্তিতে পাট থেকে পলিথিন ব্যাগ উৎপাদন হবে

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

image

বাণিজ্যিক ভিত্তিতে পাট থেকে পলিথিন (জুটপলি) উৎপাদন কার্যক্রম শুরু করতে যুক্তরাজ্যের একটি

বড় সাইবার হামলা ঠেকাতে প্রস্তুতি নেই ২৮ শতাংশ ব্যাংকের

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

image

বিশ্বব্যাপী দিন দিন বাড়ছে আইটি ঝুঁকি। হ্যাকাররা সব সময় সাইবার হামলার জন্য প্রস্তুত। এরপরও বড় সাইবার হামলা মোকাবিলায় দেশের ২৮

তিন মাসে পোশাক রপ্তানি কমেছে ২৮ কোটি ডলার

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

image

বাংলাদেশের অর্থনীতিতে তৈরি পোশাক গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখলেও রপ্তানি প্রবৃদ্ধি বেশ কয়েক

sangbad ad