• banlag
  • newspaper
  • epaper

ঢাকা , মঙ্গলবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮

 

ইএমটিএস এ টাকা পাঠাতে ফি কমানোর প্রস্তাব : ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয়

নিউজ আপলোড : ঢাকা , বুধবার, ০৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮

সংবাদ :
  • অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক
image

গত পাঁচ বছরের ব্যবধানে পোস্ট অফিসের ‘ইলেকট্রনিক মানি ট্রান্সফার সার্ভিসের (ইএমটিএস) মাধ্যমে টাকা পাঠানোর পরিমাণ কমেছে ৯৫ শতাংশ। অতিরিক্ত ফি’র কারণে এমনটা হয়েছে বলে মনে করছে পোস্টাল বিভাগ। মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে টাকা পাঠাতে খরচ অনেক কম। যেমন মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে এক হাজার টাকা পাঠাতে খরচ পরে মাত্র পাঁচ টাকা। আর ইএমটিএসের মাধ্যমে এক হাজার টাকা পাঠাতে গেলে একজন গ্রাহককে ফি হিসেবে দিতে হয় ১৮ টাকা ৫০ পয়সা। এ অবস্থায় ব্যবসায় টিকে থাকতে ফি কমানোর জন্য অর্থ মন্ত্রণালয়ে প্রস্তাব করেছে ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয়। অর্থ মন্ত্রণালয় সূত্রে এসব তথ্য দেখা গেছে।

অর্থ বিভাগে পাঠানো ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয়ের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ইএমটিএসের মাধ্যমে ২০১২-২০১৩ অর্থবছরে বিভিন্ন জায়গা থেকে সেবাগ্রহীতাদের পাঠানো অর্থের পরিমাণ ছিল মোট দুই হাজার ১৬১ কোটি ৪৯ লাখ টাকা। যেখানে ২০১৬-২০১৭ অর্থবছরে টাকা পাঠানো হয়েছে মাত্র ১১৮ কোটি ২২ লাখ। অর্থাৎ পাঁচ বছরের ব্যবধানে ইএমটিএসের মাধ্যমে অর্থ পাঠানোর পরিমাণ কমেছে দুই হাজার ৪৩ কোটি ২৭ লাখ টাকা। যা প্রায় ৯৫ শতাংশ।

জানা গেছে, টাকা পাঠানোর অতিরিক্ত ফি এবং বেসরকারি মোবাইল ব্যাংকিংয়ের আগ্রাসী ব্যবসার কারণে পোস্ট অফিসের এই সার্ভিসের এই অবস্থা। এই পরিস্থিতিতে ব্যবসায় টিকে থাকার জন্য ইলেকট্রনিক মানি ট্রান্সফার সার্ভিসের ফি কমানোর জন্য অর্থ মন্ত্রণালয়ের কাছে প্রস্তাব পাঠিয়েছে ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয়। অর্থ বিভাগের পক্ষ থেকে ইএমটিএসের ফি কমানোর বিষয়টি সক্রিয় বিবেচনা করা হচ্ছে বলে জানা গেছে।

ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয়ের এক প্রস্তাবে ইলেকট্রনিক মানি ট্রান্সফার সার্ভিসের ফি’র একটি বিবরণী পাঠিয়ে তা হ্রাস করার কথা বলা হয়েছে। এতে দেখা যায়, বর্তমানে ইএমটিএসের মাধ্যমে এক হাজার টাকা পাঠাতে গেলে একজন গ্রাহককে ফি হিসেবে দিতে হয় ১৮ টাকা ৫০ পয়সা।

অন্যদিকে ৫০ হাজার টাকা পাঠাতে ফি দিতে হয় ৯২৫ টাকা। যেখানে মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে টাকা পাঠাতে খরচ অনেক কম। যেমন মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে এক হাজার টাকা পাঠাতে খরচ পরে মাত্র পাঁচ টাকা। আর ৫০ হাজার টাকা পাঠাতে খরচ পরে একশ টাকারও কম।

প্রতিযোগিতায় টিকে থাকতে ইএমটিএসের মাধ্যমে বর্তমানে যেখানে এক হাজার টাকা পাঠাতে সাড়ে ১৮ টাকা প্রেরককে দিতে হয় সেখানে এই ফি কমিয়ে ১০ টাকা করার প্রস্তাব করেছে ডাক অধিদফতর। একইভাবে চার হাজার টাকা পাঠানোর ফি বিদ্যমান ৭৪ টাকা কমিয়ে ২০ টাকা, পাঁচ হাজার টাকা পাঠানোর ফি সাড়ে ৯২ টাকার পরিবর্তে ২৫ টাকা, ১০ হাজার টাকা পাঠানোর ফি ১৮৫ টাকার পরিবর্তে ৫০ টাকা, ২০ হাজার টাকা পাঠানোর ফি ৩৭০ টাকার পরিবর্তে ১০০ টাকা, ৩০ হাজার টাকা পাঠানোর ফি ৫৫৫ টাকার পরিবর্তে ১৫০ টাকা এবং ৫০ হাজার টাকা পাঠানোর ফি বিদ্যমান ৯২৫ টাকার পরিবর্তে ২৫০ টাকা করার প্রস্তাব করা হয়েছে।

তিন দিন ধরে বেনাপোলে বন্ধ আমদানি-রপ্তানি

সংবাদ ডেস্ক

image

বেনাপোলে বন্দর দিয়ে গত ৩ দিনেও চালু হয়নি দু’দেশের মধ্যে আমদানি-রপ্তানি বাণিজ্য।

চামড়া রপ্তানিতে আয় কমছে ২৬.২৬ শতাংশ

অথণৈতিক বার্তা পরিবেশক

image

চলতি অর্থবছরের প্রথম দুই মাসে চামড়া রপ্তানিতে আয় হয়েছে ১৮ কোটি ৩০ লাখ মার্কিন

নির্বাচনকালীন পরিবেশ অর্থনীতির ওপর প্রভাব ফেলবে না : অর্থমন্ত্রী

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

নির্বাচনকালীন পরিবেশ দেশের অর্থনীতির উপর কোন প্রভাব ফেলবে না বলে জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী

sangbad ad

বিমা দাবি পরিশোধে করেনি ৮ কোম্পানি

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

আস্থা সঙ্কট দূর করতে ৭০টি কোম্পানি প্রায় সাড়ে ৩ হাজার কোটি টাকার বেশি বিমা দাবি

রিহ্যাব পুরস্কার পেলেন ২৪ গণমাধ্যমকর্মী

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

image

রিয়েল এস্টেট অ্যান্ড হাউজিং অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (রিহ্যাব) আয়োজিত বর্ষসেরা

সঞ্চয়পত্র থেকে সরকারের ধার ৫ হাজার কোটি টাকা

রোকন মাহমুদ

image

চলতি অর্থবছরের প্রথম মাস জুলাইয়ে সঞ্চয়পত্রে বড় ধরনের বিনিয়োগ এসেছে। এ

বাংলাদেশে বিনিয়োগ করতে চায় থাই ব্যবসায়ীরা

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

image

বাংলাদেশের বিভিন্ন সম্ভাবনাময় খাতে বিনিয়োগের আগ্রহ প্রকাশ করেছে থাইল্যান্ডের ব্যবসায়ীরা। নিকটতম

পুনর্মুদ্রণ হবে বাংলাদেশ ব্যাংকের ইতিহাস

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

image

‘বাংলাদেশ ব্যাংকের ইতিহাস’ গ্রন্থ পুনর্মুদ্রণের উদ্যোগ নিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। গ্রন্থটিতে

এসডিজি বাস্তবায়নে বেসরকারি খাতের ভূমিকা অর্ধেকেরও বেশি

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

image

টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা বা এসডিজি (সাসটেন্যাবল ডেভেলপমেন্ট গোল) বাস্তবায়নে

sangbad ad