• banlag
  • newspaper
  • epaper

ঢাকা , শনিবার, ০৮ আগস্ট ২০২০

 

লকডাউন প্রত্যাহার হলেও পূর্ব রাজাবাজার রেডজোন

নিউজ আপলোড : ঢাকা , বুধবার, ০১ জুলাই ২০২০

সংবাদ :
  • ইবরাহীম মাহমুদ আকাশ
image

পূর্ব রাজাবাজারে লকডাউন প্রত্যাহারের পর খুলে দেয়া হয় ব্যারিকেড। চলাচল শুরু করে যানবাহন। তবে রেডজোন তুলে নেয়া হয়নি-সংবাদ

করোনাভাইরাসের কারণে ২১ লকাডাউন শেষে স্বাভাবিক হয়েছে রাজধানীর পূর্ব রাজাবাজার এলাকা। কিন্তু জনমনে ভাইরাস আতঙ্ক রয়েছে এখনও। লকডাউন থাকাকালে এই এলাকায় ২০৫ জনের করোনা পরীক্ষা করা হয়। এরমধ্যে ৪০ জনের সংক্রমণ ধরা পড়ে। এছাড়া লকডাউনের শুরুতে আরও ৩৪ জন করোনা রোগী ছিল। তাই লকডাউন শেষে পূর্ব রাজাবাজারে রোগীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৭৪ জনে। লকডাউন প্রত্যাহার হলেও সংখ্যাতাত্ত্বিক দিক থেকে এখনও পূর্ব রাজাবাজারকে রেডজোন থেকে ইয়েলো জোনের অন্তর্গত হিসেবে ঘোষণা করা যাবে না বলে জানিয়েছেন ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র আতিকুল ইসলাম। তবে পরীক্ষামূলকভাবে জোনভিত্তিক লকডাউন কার্যকরে পূর্ব রাজাবাজার সফল হয়েছে বলে ডিএনসিসি’র সূত্র জানায়। পূর্ব রাজাবাজারের লকডাউন কার্যকর করায় স্থানীয় কমিউনিটিকে যুক্ত করা খুবই ইতিবাচক একটি পদক্ষেপ ছিল। কিন্তু ঢাকা মহানগরীতে শুধু একটি-দুটি এলাকায় লকডাউন কার্যকর তেমন সুবিধা পাওয়া যাবে না। শহরের অন্য রেডজোনে দ্রুত লকডাউন কার্যকরের পরামর্শ বিশেষজ্ঞদের।

লকডাউন বাস্তবায়নের অবস্থা পর্যালোচনা করে মেয়র আতিকুল ইসলাম বলেন, গত ৯ জুন দিবাগত রাত ১২টার পর থেকে পূর্ব রাজাবাজার এলাকায় করোনাভাইরাসের সংক্রমণ প্রতিরোধে জোনিং কার্যক্রম বাস্তবায়নের ফেইজ-১ শুরু হয়। গত তিন সপ্তাহ পরে আমাদের অভিজ্ঞতা এখানে ভালো। জোনিং কার্যক্রম বাস্তবায়নের পর থেকে এই এলাকায় সংক্রমণের হার কমেছে। তবে সংখ্যার দিক দিয়ে আমরা এখনও সেই অবস্থানে পৌঁছাইনি, যেখান থেকে এই এলাকায় রেডজোন হতে ইয়েলো জোনের দিকে নিয়ে যেতে পারি। এটি ছিল আমাদের পরীক্ষামূলক কার্যক্রম। আমরা দেখেছি দীর্ঘদিন কোন এলাকার মানুষের জীবিকা বন্ধ রেখে জীবন রক্ষা করা কঠিন। তাই জীবন ও জীবিকার মধ্যে ভারসাম্য রক্ষা করার স্বার্থে কিছু বিষয় পরিবর্তন আনা দরকার, যা আগামী চতুর্থ সপ্তাহ থেকে বাস্তবায়ন করা যেতে পারে।

পূর্ব রাজাবাজারের বাসিন্দাদের উদ্দেশে মেয়র বলেন, যেহেতু লকডাউন শেষ হচ্ছে। তাই এলাকায় সামাজিক দূরত্ব মানার স্বার্থে প্রতিটি দোকানের সামনে বেষ্টনীর ব্যবস্থা রেখে ক্রেতা ও বিক্রেতা উভয়কে মাস্ক পরিধান করে কেনাকাটা করতে হবে। কখনই ভিড় না করে কমপক্ষে ৩ ফুট দূরত্ব বজায় রেখে স্থানীয় দোকানপাট খোলা যাবে। ভ্রাম্যমাণ মুদি দোকান চালু না রাখলেই ভালো। মসজিদ-মন্দিরসহ সব ধর্মীয় উপাসনালয়ে সামাজিক দূরত্ব অবশ্যই বজায় রাখতে হবে। পূর্ব রাজাবাজার এলাকায় পুনঃসংক্রমণরোধে বহিরাগতদের অবাধ প্রবেশ নিরুৎসাহিত করা হবে। যেসব ভবনে কোভিড-১৯ পজেটিভ রোগী আছে তা লকডাউন থাকবে। শুধুমাত্র পূর্ব রাজাবাজারবাসীর সুবিধার্থে নমুনা সংগ্রহের বুথ আগের মতোই খোলা থাকবে। করোনার লক্ষণ কিংবা উপসর্গ আছে এমন সন্দেহভাজন কোভিড-১৯ রোগীর নমুনা সংগ্রহ করা হবে। মেয়র বলেন, ‘এতে কোন সন্দেহ নেই যে, জোনিং কার্যক্রম বাস্তবায়নের ফলে এই এলাকার পরিস্থিতি অনেক উন্নতি হয়েছে। কিন্তু উল্লেখিত নির্দেশনাগুলো না মানলে পরিস্থিতি আগের মতো আরও খারাপ হতে পারে। তাই সবাই বাসায় থাকবেন, অত্যাবশ্যকীয় না হলে কেউ বাসা থেকে বের হবেন না। মাস্ক ছাড়া কেউ বাসা হতে বের হবেন না এবং সঠিক নিয়ম যেমন- নাক-মুখ ঢেকে মাস্ক পরিধান করতে হবে। বাসার বাইরে সবসময় সামাজিক দূরত্ব মেনে চলুন। কমপক্ষে ৩ ফুট তবে ৬ ফুট দূরত্ব মেনে চলা বেশি ভালো। সাবান পানি দিয়ে ঘন ঘন হাত ধুতে হবে। কোন কারণে সাবান না থাকলে হ্যান্ডস্যানিটাইজার দিয়ে হাত জীবাণুমুক্ত রাখতে হবে।’

তবে ঢাকা মহানগরীতে শুধু একটি-দুটি এলাকায় লকডাউন কার্যকর তেমন সুবিধা পাওয়া যাবে না উল্লেখ আইইডিসিআরের উপদেষ্টা ও সাবেক প্রধান বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা মোশতাক হোসেন সংবাদকে বলেন, পূর্ব রাজাবাজারের লকডাউন কার্যকর করায় স্থানীয় কমিউনিটিকে যুক্ত করা খুবই ইতিবাচক একটি পদক্ষেপ ছিল। রাজাবাজারের স্থানীয়রা যখন সেখানকার বাসিন্দাদের বাসায় গিয়ে কন্ট্যাক্ট ট্রেসিং করেছে, নমুনা সংগ্রহে সাহায্য করেছে, তখন বাসিন্দাদের মধ্যে এক ধরনের আত্মবিশ্বাস তৈরি হয়েছে। নিজেদের এলাকার মানুষের সহায়তার ফলে বাসিন্দারাও সঠিক তথ্য দিয়েছেন, যেটা এর আগে অনেক ক্ষেত্রেই দেখা যায়নি। তবে শহরের শুধুমাত্র একটি এলাকা ‘রেডজোন’ থাকার কারণে রাজাবাজারের লকডাউন কার্যকরভাবে বাস্তবায়নও চ্যালেঞ্জিং ছিল। একসঙ্গে বেশ কয়েকটি এলাকাকে রেডজোন হিসেবে চিহ্নিত করলে এই ধরনের পদক্ষেপের সুফল আরও দ্রুত পাওয়া সম্ভব। তাই রাজধানীর অন্যান্য রেডজোনে দ্রুত লকডাউন কার্যকরের পরামর্শ দেন তিনি।

সরেজমিন রাজধানীর পূর্ব রাজাবাজার ঘুরে দেখা গেছে, করোনাভাইরাসমুক্ত হওয়ার জন্য তিন সপ্তাহের কঠোর অবরুদ্ধ দশা পেরিয়ে স্বস্তি বোধ করলেও ফের এলাকায় এই ভাইরাস যাওয়ার ভয় পাচ্ছেন রাজধানীর পূর্ব রাজাবাজারের বাসিন্দারা। এর কারণ হিসেবে এলাকায় আবার আগের মতো ভ্যান গাড়িতে মাছ-সবজি ও ফলমূল বিক্রেতাদের আনাগোনা শুরু হওয়ার সঙ্গে লকডাউন শুরুর আগে এলাকা ছাড়া বাসিন্দাদের ফিরে আসার সম্ভাবনার কথা বলছেন তারা। করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে দেশব্যাপী টানা দুই মাসের লকডাউন শেষে সব কিছু খোলার পরে সংক্রমণ বাড়তে থাকায় সারা দেশকে লাল, হলুদ ও সবুজ জোনে ভাগ করে ফের বিধি-নিষেধ আরোপের উদ্যোগ নিয়েছে সরকার। সেই উদ্যোগের প্রথম পদক্ষেপ হিসেবে গত ৯ জুন পূর্ব রাজাবাজারে পরীক্ষামূলক কঠোরভাবে লকডাউন বাস্তবায়ন শুরু হয়। এরপর ২১ দিন শুধু চিকিৎসক-নার্স-সাংবাদিক ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা ছাড়া আর কেউই ওই এলাকায় ঢুকতে বা সেখান থেকে বেরোতে পারেননি। ফার্মেসি ছাড়া এলাকার সব দোকানপাট ছিল বন্ধ। এই এলাকার বাসিন্দাদের জন্য এটি ছিল অভূতপূর্ব ও কষ্টকর অভিজ্ঞতা। লকডাউনের মেয়াদ শেষ হওয়ায় মঙ্গলবার (৩০ জুন) রাত ১২টার পর থেকে বিধি-নিষেধ শিথিল করে ওই এলাকায় প্রবেশ ও বের হওয়ার দুটি পথ খুলে দেয়া হয়েছে।

এ বিষয়ে ডিএনসিসি’র ওয়ার্ড কাউন্সিলর ফরিদুর রহমান খান ইরান সংবাদকে বলেন, করোনাভাইরাসের সংক্রমণ শুরু হওয়ার পর থেকে আমরা স্বাস্থ্যবিধিসহ সরকারের সব নির্দেশনা পালন করে আসছি। ২১ দিনের লকডাউন শেষ হলেও রাজাবাজার এলাকায় প্রবেশের মোট ১০টি গেটের মধ্যে মাত্র দুটি আমরা খুলে দিয়েছি, বাকি আটটি গেটই বন্ধ আছে। ফলে রিকশা বা গাড়িতে করে বহিরাগত প্রবেশের সুযোগটা কম থাকবে। তাছাড়া লকডাউন খুললেও স্বাস্থ্যবিধি মানার সবধরনের কার্যক্রম আমরা চলমান রাখছি।

আবদুল কাদের নামের এক স্থানীয় বাসিন্দা বলেন, ২১ দিনের লকডাউনে অনেক কষ্টকর অভিজ্ঞতা আছে, অনেক অব্যবস্থাপনা ছিল সেগুলো বলতে চাই না। সামনে দিনগুলো নিয়েই বেশি চিন্তা। যে লোকগুলো এই এলাকার বাইরে থাকে অথবা যে সব ভাড়াটিয়া বাড়ি থেকে আসবে এবং লকডাউনের কথা শুনে অন্যত্র কোথাও চলে গিয়েছিল তারা তো আজ থেকেই এলাকায় ঢুকতে শুরু করবে। এই নতুন লোকগুলো করোনাভাইরাস নিয়ে আসছে কি না সেদিকে নজর রাখাটা জরুরি। এছাড়া দীর্ঘদিনের লকডাউন শেষে অনেকেই স্বাস্থ্যবিধি মানছে না, তাদের বিষয়গুলো কীভাবে সমাধান করবে সেটাও প্রশাসনকে দেখতে হবে। সব মিলিয়ে স্বস্তি ফিরলেও আতঙ্ক তো আর কাটছে না। সবকিছু নির্ভর করবে লকডাউন পরবর্তী ব্যবস্থাপনা কী হয় তার ওপর।

গাড়িচাপায় পর্বতারোহী রেশমা নিহত

সংবাদ অনলাইন ডেস্ক

image

রাজধানীর লেকরোডে প্রাইভেটকার চাপায় পর্বতারোহী রেশমা নাহার (৩৩) নিহত হয়েছেন। শুক্রবার সকাল ৯টার দিকে সংসদ ভবন এলাকার চন্দ্রিমা উদ্যান সংলগ্ন লেক

লিবিয়া নাগরিকসহ ৬ মানব পাচারকারী আটক

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

মধ্য প্রাচ্যের দেশ লিবিয়ায় অবৈধভাবে মানব পাচারের অভিযোগে রাজধানীতে

পুরানা পল্টনের বিশিষ্ট ব্যক্তি মহিউদ্দীন ফজলে ইউসুফের ইন্তেকাল

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

ঢাকার পুরানা পল্টনের বিশিষ্ট ব্যক্তি, নাট্যকার নাসিরউদ্দিন ইউসুফ বাচ্চুর বড় ভাই মহিউদ্দীন

sangbad ad

বন্যা কবলিত ঢাকার নিন্মাঞ্চল : পরিস্থিতি সংকটাপন্ন

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

সারাদেশের প্রবল বন্যার প্রকোপ এখন রাজধানীর দিকেও প্রলম্বিত হচ্ছে। বন্যার কবলে পড়েছে

কাঁঠাল গাছে ঝুলন্ত লাশ

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

রাজধানীর মগবাজারের আমবাগান এলাকায় একটি কাঁঠাল গাছ থেকে অজ্ঞাত পরিচয় এক ব্যক্তির

২৪ ঘন্টায় ঢাকাকে বর্জ্যমুক্ত করার দাবি দুই করপোরেশনের

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

কোরবানির পশুর বর্জ্য ২৪ ঘণ্টার মধ্যে অপসারণ করা হয়েছে বলে দাবি করেছে

২৪ ঘন্টার মধ্যে কোরবানি পশুর বর্জ্য অপসারণ করা হবে: ডিএনসিসি মেয়র

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের (ডিএনসিসির) মেয়র মোঃ আতিকুল ইসলাম বলেছেন, আগামী ২৪

ঢাকা এখন ফাকা

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

ঢাকা এখন ফাঁকা। করোনা ভাইরাসের সংক্রমণের ঝুঁকি থাকার পরও নাড়ির টানে স্বজনদের

২টা থেকে বর্জ্য অপসারণ শুরু: তাপস

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস বলেছেন, বর্জ্য