• banlag
  • newspaper
  • epaper

ঢাকা , বৃহস্পতিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২১

 

করোনার ধাক্কা কাটিয়ে ঘুরে দাঁড়াচ্ছে আমদানি খাত

নিউজ আপলোড : ঢাকা , শনিবার, ১৬ জানুয়ারী ২০২১

সংবাদ :
  • অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক
image

নভেম্বরে প্রায় ৪৮১ কোটি ডলারের পণ্য আমদানি হয়েছে

করোনাভাইরাস প্রদুর্ভাবের পর আমদানি রপ্তানিতে ভাটা পড়ে। এপ্রিল-মে মাসে রপ্তানি তলানিতে ঠেকে। একই সঙ্গে আমদানিও কমে উল্লেখ্যযোগ্য হারে। এরপর কয়েক মাস আমদানি কমতেই থাকে। তবে করোনার ধাক্কা কাটিয়ে ফের ঘুরে দাঁড়াতে শুরু করেছে আমদানি খাত। আমদানি বৃদ্ধি শুরু হয় গত নভেম্বর মাসে। সেই মাসে প্রায় ৪৮১ কোটি ডলারের পণ্য আমদানি হয়েছে। আর এটিই হচ্ছে করোনা শুরু পর সবচেয়ে বড় আমদানি। অর্থনীতিবিদরা বলছেন, আমদানি বৃদ্ধির অর্থ হলো দেশে বিনিয়োগ বাড়ছে এবং অর্থনীতি চাঙ্গা হচ্ছে।

বাংলাদেশ ব্যাংকের পরিসংখ্যানে দেখা যায়, গত বছরের নভেম্বরে দেশে ৪৮১ কোটি ৮৪ লাখ ডলারের বিভিন্ন ধরনের পণ্য আমদানি হয়েছে। আমদানির এই অঙ্ক আগের বছরের নভেম্বরের তুলনায় ৯ দশমিক ৭০ শতাংশ বেশি। ২০১৯ সালের নভেম্বরে দেশে ৪৩৯ কোটি ২৪ লাখ ডলারের পণ্য আমদানি হয়েছিল। ২০২০ সালের প্রথম মাস জানুয়ারিতে ৫৩৩ কোটি ৪১ লাখ ডলারের পণ্য আমদানি করেছিল বাংলাদেশ। পরের দুই মাস ফেব্রুয়ারি ও মার্চে আমদানি হয় যথাক্রমে ৪৭২ কোটি ৩৭ লাখ ডলার ও ৪২৭ কোটি ৭২ লাখ ডলারের পণ্য। এরপরই লাগে করোনাভাইরাস মহামারীর ধাক্কা। সেই ধাক্কায় এপ্রিলে আমদানি ব্যয় ২৮৫ কোটি ৮৫ লাখ ডলারে নেমে আসে, যা ছিল বহুবছরের মধ্যে সর্বনিম্ন। মে ও জুন মাসে যথাক্রমে ৩৫৩ কোটি ৩৪ লাখ ও ৪৮০ কোটি ৭৯ লাখ ডলারের পণ্য আমদানি করে বাংলাদেশ। চলতি ২০২০-২১ অর্থবছরের প্রথম মাস জুলাইয়ে ৪২২ কোটি ৪০ লাখ ডলারের পণ্য আমদানি হয়। অগাস্টে হয় ৩৮০ কোটি ৬০ লাখ ডলারের পণ্য। সেপ্টেম্বর ও অক্টোবরে আমদানি খাতে ব্যয় হয় যথাক্রমে ৪৬৫ কোটি ২৫ লাখ এবং ৪৩৫ কোটি ৫৮ লাখ ডলার। নভেম্বরে তা ৪৮১ কোটি ছাড়িয়ে যায়।

অর্থনীতিবিদরা বলছেন, করোনার পর আমদানি রপ্তানি দুই খাতেই ধস নেমেছিল। এরপর রপ্তানি খাত কয়েক মাস আগেই উঠে দাঁড়িয়েছে। এরপর আদমানি খাতও ভালো হচ্ছে। এটা অর্থনীতির জন্য ভালো। কারণ আমদানি বাড়ছে এর অর্থ হলো দেশে বিনিয়োগ হচ্ছে। আর বিনিয়োগ হলে অর্থনীতি চাঙ্গা থাকে। যখন আদমানি হয় তখন এর সঙ্গে জড়িত অন্যান্য খাতগুলোও চাঙ্গা হয়। অর্থাৎ এই খাতটি ভালো হলে অনেক খাতের ওপর ইতিবাচক প্রভাব পড়ে।

বাংলাদেশ ব্যাংকের তথ্যে দেখা যায়, গত ২০১৯-২০ অর্থবছরে বাংলাদেশ বিভিন্ন দেশ থেকে মোট ৫৪ দশমিক ৭৮ বিলিয়ন ডলারের পণ্য আমদানি করেছিল, যা ছিল আগের অর্থবছরের (২০১৮-১৯) চেয়ে ৮ দশমিক ৫৬ শতাংশ কম। এদিকে আমদানি বাড়ায় বাংলাদেশ ব্যাংলাদেশ ব্যাংকের বিদেশি মুদ্রার সঞ্চায়নও (রিজার্ভ) খানিকটা কমেছে। বুধবার (১৩ জানুয়ারী) দিন শেষে রিজার্ভ ছিল ৪২ দশমিক ২ বিলিয়ন ডলার। গত ৩০ ডিসেম্বর অতীতের সব রেকর্ড ছাড়িয়ে রিজার্ভ ৪৩ বিলিয়ন ডলার অতিক্রম করেছিল। ৭ জানুয়ারি এশিয়ান ক্লিয়ারিং ইউনিয়নের (আকু) নভেম্বর-ডিসেম্বর মেয়াদের ১ দশমিক ২৫ বিলিয়ন ডলার আমদানি বিল পরিশোধের পর তা ৪২ বিলিয়ন ডলারে নেমে এসেছে।

তবে দেশের অর্থনীতিতে গুরুত্বপূর্ণ রেমিট্যান্স বেড়েই চলেছে। ধারণা করা হচ্ছিল, করোনার প্রথম দিকে যে হারে রেমিট্যান্স আসছিল তেমন গতি কয়েক মাস পর আর থাকবে না। তবে এমন প্রভাব পড়েনি। বাংলাদেশ ব্যাংকের পরিসংখ্যানে দেখা যায়, চলতি অর্থবছরের জুলাই থেকে ডিসেম্বর এই ছয় মাসে রেমিট্যান্সের প্রবৃদ্ধি হয়েছে ৩৭ দশমিক ৬০ শতাংশ। ডিসেম্বর মাসে ২০৫ কোটি ডলারের রেমিট্যান্স এসেছে। গত বছরের একই সময়ে এসেছিল ১৫৯ কোটি ১৬ লাখ ডলার। মহামারীর মধ্যেই চলতি অর্থবছরের প্রথম মাস জুলাইয়ে দুই দশমিক ছয় বিলিয়ন ডলারের রেমিট্যান্স এসেছিল দেশে যা এযাবৎকালের সর্বোচ্চ। রেমিট্যান্সের গতি সচল থাকায় বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভও বাড়ে। বৈদেশিক মুদ্রার মজুদ নতুন উচ্চতায় পৌঁছার কথা উল্লেখ করে অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল গণমাধ্যমকে বলেছেন, রিজার্ভ ৪৩ বিলিয়ন ডলার ছাড়িয়ে যাওয়া আমা?দের অর্থ?নৈ?তিক সক্ষমতার অন্যতম মাইলফলক। নতুন এক?টি বছ?রের শুরু?তে অবশ্যই এটি অত্যন্ত সুখকর ঘটনা।

সূচকের ওঠানামায় পুঁজিবাজারে লেনদেন চলছে

সংবাদ অনলাইন ডেস্ক

image

সপ্তাহের শেষ কার্যদিবস বৃহস্পতিবার (২৫ ফেব্রুয়ারি) দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ

বিদেশি বিনিয়োগ টানতে প্রচারণা চালাবে বিডা

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

image

পরিসংখ্যানে দেখা যায়, বাংলাদেশে বিদেশী বিনিয়োগ এশিয়ার দেশগুলোর চেয়ে অনেক কম।

পাঁচ দিন পর সূচক সামান্য বাড়লেও লেনদেন কমেছে

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

টানা পাঁচ দিন পর মঙ্গলবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) উত্থানে শেষ হয়েছে শেয়ারবাজার।

sangbad ad

ন্যাশনাল ব্যাংকের চেয়ারম্যান মনোয়ারা সিকদার

image

ন্যাশনাল ব্যাংকের চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন মিসেস মনোয়ারা সিকদার।

ইলেকট্রনিক্স ব্যবসায় বৈশ্বিক চ্যালেঞ্জ মোকাবিলার প্রত্যয়

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

করোনা মহামারী পরবর্তী ইলেকট্রনিক্স ব্যবসার বৈশ্বিক চ্যালেঞ্জ মোকাবিলার প্রত্যয় নিয়ে কক্সবাজারে অনুষ্ঠিত হলো ওয়ালটনের ব্যবসায়িক সম্মেলন।

সূচকের বড় উত্থানে চলছে লেনদেন

সংবাদ অনলাইন ডেস্ক

image

সূচকের বড় উত্থানে দেশের উভয় পুঁজিবাজারে চলছে লেনদেন। সপ্তাহের তৃতীয় কার্যদিবস বুধবার

তিন আর্থিক প্রতিষ্ঠানের দুর্নীতিতে দায়ীদের চিহ্নিত করতে কমিটি

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত তিনটি আর্থিক প্রতিষ্ঠান ‘অনিয়ম-দুর্নীতিতে’ ডুবতে বসার ঘটনায় দায়ীদের চিহ্নিত করার পাশাপাশি দায় নিরূপণ করতে কমিটি করে দিয়েছে হাইকোর্ট।

‘নগদ’ অ্যাকাউন্ট খোলার নতুন রেকর্ড

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

কাগজপত্রের ঝামেলা ছাড়া কেবল মোবাইল ফোনের কয়েকটি বাটন চেপেই খোলা যায় ডাক বিভাগের মোবাইল ওয়ালেট সার্ভিস

সেলিম উদ্দিন হাউস বিল্ডিং ফাইন্যান্সের চেয়ারম্যান পুনঃনিয়োগ

সংবাদ অনলাইন ডেস্ক

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের হিসাব বিজ্ঞান বিভাগের প্রফেসর ড. মো. সেলিম উদ্দিনকে বাংলাদেশ হাউস বিল্ডিং ফাইন্যান্স করপোরেশনের