• banlag
  • newspaper
  • epaper

ঢাকা , বুধবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯

 

হাত বাড়ালেই হাই-ভোল্টেজ তার! আতঙ্কে শতাধিক পরিবার

নিউজ আপলোড : ঢাকা , বৃহস্পতিবার, ১২ সেপ্টেম্বর ২০১৯

সংবাদ :
  • প্রতিনিধি, কালীগঞ্জ (ঝিনাইদহ)
image

ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ পৌরসভার আড়পাড়া ও চাপালী কুঠিপাড়া গ্রামের উপর দিয়ে যাওয়া ৩৩ হাজারের ‘হাই-ভোল্টেজ’ তারের নিচে চরম ঝুঁকির মধ্যে বসবাস করছে প্রায় শতাধিক পরিবারের লোকজন। এ বিভাগের নিয়ম অনুসারে ‘হাই-ভোল্টেজ’-এ তারের সঞ্চালন লাইনের নিচে কোন বসতবাড়ি বা স্থাপনা থাকার কথা না। পাশে কমপক্ষে ১০ ফুট ফাঁকা থাকতে হবে। কিন্তু বসতঘরের পাশ ঘেষেই ঝুলছে চরম ঝুঁকিপূর্ণ হাই ভোল্টেজের বিপজ্জনক তার। এ সমস্যা থেকে রেহাই পেতে এলাকাবাসী সংশ্লিষ্ট দপ্তরে লিখিত আবেদন করলেও সমাধানে কর্তৃপক্ষের কোন নজর নেই।

সরেজমিনে কালীগঞ্জ পৌর এলাকার আড়পাড়ার মধূপট্টি, নদীপাড়া, মাঠপাড়া,দরগাপাড়া,চাপালী কুঠিপাড়াসহ বেশ কয়েকটি এলাকায় অত্যন্ত ঝুঁকিপূর্ণভাবে ঝুলে আছে ৩৩ হাজার হাই-ভোল্টেজের সঞ্চালন বিদ্যুত লাইনের তার।

আড়পাড়া দরগাপাড়া গ্রামের ব্যাংকার মোজাম্মেল হক ও পল্লী চিকিৎসক আব্দুল জব্বার জানান, তাদের বসতঘরের একবারে নিকট দিয়ে চলে গেছে হাই ভোল্টেজের এ বিদ্যুৎ লাইন। যে কারণে সব সময় পরিবারের শিশুদের নিয়ে চিন্তায় থাকতে হয়।

এ এলাকার আরেক বাসিন্দা হাবিব ওসমান জানান, আজ থেকে ৪০ বছর আগে বিদ্যুতের লাইনটি টানা হয়। তখন এতো জনবসতি ছিলনা। এখন ঘনবসতি গড়ে উঠেছে। আবার উদাসীনতার কারণে অনেকে বিপদজনক তার ঘেষেই ঘর তুলেছেন। এ এলাকায় অহরোহ ঘটছে দুর্ঘটনা। এলাকার সচেতন মহল দীর্ঘদিন ধরে তাদের ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থার কথা সংশ্লিষ্ট বিভাগকে জানালেও কোন সুরাহা হয়নি। এ সমস্ত এলাকার বাসিন্দারা জানান, তাদের বাসাবাড়ির ছাদ বা ঘরের অল্প ওপর দিয়েই চলে গেছে লাইন। যে কারণে অনেকে ঘরও করতে নির্মাণ করতে পারছে না। বসত বাড়ির ওপর দিয়ে যাওয়া বিপদজনক এই তারে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ যদি কভার পরানো দিয়ে তাহলেও কিছুটা হলেও নিরাপদে বসবাস করতে পারত।

এ ব্যাপারে ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ ওয়েস্ট জোন পাওয়ার ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি (ওজোপাডিকোর) ভারপ্রাপ্ত আবাসিক প্রকৌশলী সাইদুল ইসলাম জানান, এটা অনেক আগে স্থাপিত হয়েছে। এ বিষয়ে ৩ মাস আগে ভুক্তভোগী পরিবারগুলোর আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে আমি বিদ্যুৎ এলাকাটি সরেজমিনে পরিদর্শন করি। তিনি জানান, আসলেই পরিবারগুলো খুবই ঝুঁকিপূর্ণভাবে বসবাস করছে। বিষয়টি উপরের কর্তৃপক্ষকে জানিয়েছি।

পিয়াজের বাজারে অস্থিরতা

রোকন মাহমুদ

image

চাহিদার তুলনায় মজুদ বেশি থাকার পরও দেশের বাজারে হঠাৎ বেড়েছে পিয়াজের দাম। দেশের খুচরা পর্যায়ে দুই দিনের ব্যবধানে পিয়াজের

‘অবহেলায় প্রসূতি মৃত্যু’র ঘটনার অন্তত কমিটি গঠেনের নির্দেশ

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

সিজারের পর চিকিৎসা ‘অবহেলায় প্রসূতি মৃত্যু’র ঘটনায় অন্তত তিনজন গাইনোকোলজি ও অবস বিশেষজ্ঞের সমন্বয়ে বিশেষজ্ঞ তদন্ত কমিটি

অভিযোগের প্রমাণ পেলে জাবি উপাচার্যের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে : কাদের

image

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ফারজানা ইসলামের বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগের প্রমাণ পেলে তার বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে

sangbad ad

৪৮ হাজার মামলার তদন্ত সফলভাবে শেষ হয়েছে : বিশেষ সাক্ষাৎকারে পিবিআই ডিআইজি বনজ কুমার

বাকী বিল্লাহ

image

ন্যায়বিচার যেন সবাই পান, এ জন্য সবার বক্তব্য শুনে মামলার সত্য উদ্ঘাটন করা হচ্ছে। পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)

জাবি’র উন্নয়ন : কে কত টাকা আত্মসাৎ করবে তা উপাচর্য নিজ বাসবভনে বৈঠকের মাধ্যমে নির্ধারণ করে দিয়েছিলেন

প্রতিনিধি, জাবি

image

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের উন্নয়ন মহাপরিকল্পনার নির্মাণ কাজের টাকা ভাগ-বাটোয়ারা নিয়ে ছাত্রলীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সদ্যসাবেক সাধারণ

প্রয়োজনে আমি নিজে থানার ওসি হবো - ডিএমপি কমিশনার

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

থানায় সেবার মান বাড়াতে এবং পুলিশের আচরনে পরিবর্তন আনতে প্রয়োজনে নিজে থানায় গিয়ে ওসিগিরি করার ঘোষনা দিয়েছেন

শহীদ যায়ান চৌধুরী খেলার মাঠ উন্নয়ন কাজের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

রাজধানীর বনানীস্থ ‘শহীদ যায়ান চৌধুরী খেলার মাঠ উন্নয়ন কাজের’ ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন করা হয়েছে। শনিবার (১৪ সেপ্টেম্বর) বনানী ১ নম্বর

বীর মুক্তিযোদ্ধা মোকলেছুর রহমান প্রধানের ইন্তেকাল

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

বীর মুক্তিযোদ্ধা মোকলেছুর রহমান প্রধান ১৪ সেপ্টেম্বর শনিবার রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভোররাতে ইন্তেকাল করেছেন (ইন্না লিল্লাহি

রমেক অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে সাড়ে ৪ কোটি টাকা আত্মসাতের মামলা

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

যন্ত্রপাতি ক্রয় দেখিয়ে সরকারের সাড়ে ৪ কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগে রংপুর মেডিকেল কলেজের (রমেক) অধ্যক্ষ ও ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের

sangbad ad