• banlag
  • newspaper
  • epaper

ঢাকা , মঙ্গলবার, ২৬ জুন ২০১৮

 

রাজধানী ছাড়ছে ঈদে বাড়িমুখো মানুষ

রেল ও নৌপথে স্বস্তি সড়কে ভোগান্তি

নিউজ আপলোড : ঢাকা , মঙ্গলবার, ১২ জুন ২০১৮

সংবাদ :
  • মাহমুদ আকাশ
image

ঈদ উপলক্ষে রাজধানী ছাড়ছে গ্রামমুখো মানুষ। সোমবার কমলাপুর রেলস্টেশন থেকে তোলা ছবি-সংবাদ

ঈদ সামনে রেখে রাজধানী ছাড়তে শুরু করেছেন ঘরমুখো মানুষ। রেল ও নৌপথে কিছুটা স্বস্তিতে যাতায়াত করলেও সড়কপথে যানজটের ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে তাদের। বিশেষ করে ঢাকা থেকে বের হওয়ার পথ থেকেই শুরু হয় যাত্রীদের ভোগান্তি। খানাখন্দে ভরা সড়ক, রাস্তার পাশে অবৈধ স্থাপনা, ফুটপাতের দোকান, অবৈধ গাড়ি পার্কিং ও নদীর ওপর ছোট সেতুর কারণে রাজধানীতে প্রবেশ ও বের হওয়ার মুখেই প্রতিনিয়ত প্রচ- যানজটে শিকার হতে হয় আন্তঃজেলা যানবাহনকে। যাত্রাবাড়ী থেকে কাঁচপুর পার হতেই লাগছে এক ঘণ্টারও বেশি। এ পথ দিয়ে ঢাকা-চট্টগ্রাম ও ঢাকা-সিলেট মহাসড়কে ওঠা হয়। ঢাকার মহাখালী-বনানী-আবদুল্লাহপুর হয়ে উত্তরবঙ্গগামী ও সিলেটগামী গাড়ি চলাচল করে। কিন্তু মহাখালী থেকে আবদুল্লাহপুর পার হতে দুই ঘণ্টাও লাগছে। যাত্রাবাড়ী থেকে মাওয়ার পথে বড় যানজটের শুরু হয় যাত্রাবাড়ীতেই। এছাড়া গুলিস্তান বংশাল মোড় থেকে বাবুবাজার ব্রিজ, আমিনবাজার ব্রিজ-গাবতলীর মোড়, কামারপাড়া-আবদুল্লাহপুর মোড় ও সুলতানা কামাল ব্রিজ থেকে ডেমরা মোড়সহ রাজধানীর প্রবেশ ও বের হওয়া এই ৭টি মুখেই প্রচ- যানজটের শিকার হতে হয় পরিবহনকে। এদিকে ঢাকা-টাঙ্গাইল, ঢাকা-গাজীপুর, ঢাকা-হবিগঞ্জ-সিলেট, ঢাকা-ব্রাহ্মণবাড়িয়া, কুমিল্লা-সিলেট, ঢাকা-বরিশাল ও খুলনা-যশোর মহাসড়কের বেশি ভাগ স্থানে ভাঙা-চূড়া ও ছোট-বড় গর্তে ভরা তাই ঈদযাত্রায় পথে পথে ভোগান্তি ও যানজটের শিকার হতে হচ্ছে বলে যাত্রীরা জানান। প্রতিবছর ঈদযাত্রা নির্বিঘœ করতে আন্তঃমন্ত্রণালয়ে সভা হয়। এবার একাধিক বৈঠক করেছে সড়ক ও মহাসড়ক বিভাগ। সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের ৮ জুনের মধ্যে সকল সড়ক মেরামত করে যান চলাচলের উপযোগী করার নির্দেশ দিয়েছিলেন। কিন্তু বৈঠকের সিদ্ধান্ত মাঠে বাস্তবায়ন খুব কমই দেখা যাচ্ছে বলে সংশ্লিষ্টরা জানান।

ঢাকা-চট্টগ্রাম : চার লেনের এই মহাসড়কের প্রধান সমস্যা দুই লেনের তিনটি সেতু। কাঁচপুর, মেঘনা ও গোমতী এই তিনটি সেতুর নির্মাণ কাজ চলছে। এছাড়া সড়কে ওজন নিয়ন্ত্রণ যন্ত্রের জরিমানা আদায় নিয়ে দীর্ঘ সময় ব্যয়। তাই সড়কে প্রায় অর্ধশত স্থানে যানজটে আটকে থাকে পরিবহনগুলো। ঢাকা-চট্টগ্রাম-ময়মনসিংহ রুটের কাভার্ড ভ্যানচালক সালাহউদ্দিন বলেন, ‘ঢাকা থেকে বের হয়ে কাঁচপুর থেকে দাউদকান্দি পর্যন্ত যানজটে কষ্ট করতে হয়। কুমিল্লার চান্দিনা থেকে কাঁচপুর সেতু পর্যন্ত অংশে এখনই নিয়মিত যানজট হচ্ছে। মেঘনা ও গোমতী সেতুতে টোল আদায়ে বিলম্বই এর বড় কারণ।’

ঢাকা-টাঙ্গাইল : স্বাভাবিক সময়ে এই মহাসড়ক হয়ে ২৩ জেলার প্রায় আট হাজার যানবাহন চলাচল করে। তবে ঈদ মৌসুমে যান চলাচল প্রায় চার গুণ বেড়ে যায়। ঈদের সময় চন্দ্রা মোড় থেকে বঙ্গবন্ধু সেতু পর্যন্ত ৭০ কিলোমিটার ঘণ্টা পর্যন্ত যানজটে তৈরি। ঢাকার গাবতলী, মহাখালী টার্মিনালসহ বিভিন্ন বাসস্ট্যান্ড থেকে উত্তরবঙ্গের ২০টি জেলার যানবাহন চলে বঙ্গবন্ধু সেতু হয়ে। এ সড়কে চান্দুরা থেকে এলেঙ্গা পর্যন্ত অংশে চার লেনের কাজ চলছে। ঈদের আগে সড়কের কিছু অংশ চালু করা হবে সওজ সূত্র জানায়। ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়ক চার লেনে উন্নীত করার কাজ ৩০ শতাংশ বাকি। মির্জাপুরের গোড়াই থেকে এলেঙ্গা পর্যন্ত সেতু সংযোগ সড়ক ও সড়কদ্বীপ নির্মাণকাজ শেষ হয়নি। নির্মাণ কাদের জন্য মহাসড়কের বিভিন্ন স্থানে গাড়ি ধীরগতিতে চলাচল করতে হয়। এছাড়া নগর জালফৈ থেকে ঘারিন্দা অংশ, বিসিক শিল্প এলাকা, পাবনা বাইপাসের আগেও ছোট-বড় গর্তের ওপর দিয়ে গাড়ি চালাতে হয়। কয়েক দিনের বৃষ্টিতে এলেঙ্গা ওভারব্রিজের দক্ষিণে খোয়া বের হয়েছে বলে স্থানীয়রা জানান।

এছাড়া ঢাকা-আরিচা মহাসড়ক, গাজীপুর বাইপাস ও আবদুল্লাহপুর-বাইপাইল সড়ক ধরে সব যানবাহন এসে মেশে চন্দ্রা মোড়ে। হাটিকুমরুল, তাড়াশ, শেরপুর, মোকামতলা এলাকায় মহাসড়কের একাধিক স্থানে খানাখন্দে ভরা। সিরাজগঞ্জে ইট-খোয়া-পাথর-বিটুমিন উঠে চোখে পড়ে বড় বড় গর্ত। পাবনা-নগরবাড়ী মহাসড়কের বিভিন্ন স্থানে বিটুমিন ও পাথর উঠে গেছে। সিরাজগঞ্জের চান্দাইকোনা থেকে গাইবান্ধার রহবল পর্যন্ত ৮০ কিলোমিটারের ২৫ কিলোমিটার অংশ খানাখন্দময়।

ঢাকা-আরিচা : রাজধানী ঢাকার সঙ্গে পশ্চিমাঞ্চলের ২২ জেলার সড়ক যোগাযোগের মাধ্যম এই মহাসড়ক। এর গোলড়া বাসস্ট্যান্ড ও এখানে সবজির পাইকারি বাজার, মানিকগঞ্জ বাসস্ট্যান্ড, বানিয়াজুড়ি বাসস্ট্যান্ড, উথুলি বাসস্ট্যান্ড এলাকায় যানবাহন এলোপাতাড়ি রাখায় যানবাহনের জট লেগে যায়। এই মহাসড়কে সাভারের আমিনবাজার, হেমায়েতপুর, উলাইল, সাভার বাজার বাসস্ট্যান্ড, নবীনগর, নয়ারহাট, কালমাপুর এবং নবীনগর-চন্দ্রার দীর্ঘ ১৫ কিলোমিটার পর্যন্ত তীব্র যানজট সৃষ্টি হয়। চার লেনের নবীনগর-চন্দ্রা মহাসড়কে ডিইপিজেড থেকে ভলিভদ্র বাজার পর্যন্ত ৬০০ মিটার সংস্কার হলেও প্রায় ৩০০ মিটার অংশের কাজ শেষ হয়নি। নবীনগর-চন্দ্রা ও টঙ্গী-আশুলিয়া-ডিইপিজেড মহাসড়কের সংযোগস্থল বাইপাইল ত্রিমোড়ে যান্ত্রিক ও অযান্ত্রিক থ্রি হুইলার বেড়ে যাওয়ায় যানজট হচ্ছে। বগুড়া-নাটোর মহাসড়কের নন্দীগ্রামের জামাদারপুকুর থেকে গাড়িদহ সড়কের বিভিন্ন স্থানে গভীর খানাখন্দ সৃষ্টি হয়েছে বলে স্থানীয়রা জানান। তাই এবার ঈদ যাত্রায় সড়কে যানজট ও দুর্ভোগের কথা চিন্তা করেন গ্রামে যাচ্ছেন নগরবাসী।

এদিকে সড়কপথে যানজট ও ভোগান্তি থাকলেও স্বস্তিতে বাড়ি ফিরছেন রেলওয়ের যাত্রীরা। ট্রেনে ঈদযাত্রার দ্বিতীয় দিন ১১ জুন সোমবারও কমলাপুর রেলস্টেশনে যথাসময় ছেড়ে গেছে আন্তঃনগর ট্রেনগুলো। সোমবার (১১ জুন) কমলাপুর স্টেশন থেকে ৬৬টি ট্রেন দেশের বিভিন্ন স্থানে ছেড়ে যায়। এর মধ্যে ৪টি ট্রেন কিছুটা দেরি করলেও প্রতিটি ট্রেন যথাসময় স্টেশন ছেড়ে গেছে। সুন্দরবন এক্সপ্রেস সকাল ৬টা ২০ মিনিটে ছাড়ার কথা থাকলেও তা ৩০ মিনিট দেরি করে ছেড়ে গেছে। কিশোরগঞ্জগামী এগারসিন্ধু এক্সপ্রেস ৭টা ১৫ মিনিটে ছাড়ার কথা থাকলেও তা ৩৫ মিনিট দেরি করে। তারাকান্দিগামী অগ্নিবীণা এক্সপ্রেস ৪০ মিনিট দেরি করে স্টেশন ছাড়ে। চিলাহাটিগামী নীলসাগর এক্সপ্রেস সকাল ৮টায় ছাড়ার কথা থাকলেও স্টেশন ছাড়ে ৪০ মিনিট দেরিতেÑ৮টা ৪০ মিনিটে ছেড়ে গেছে বলে রেলওয়ে সূত্র জানায়। নয়ন নামের নীলসাগর এক্সপ্রেসের এক যাত্রী বলেন, আমাদের দেশে আধা ঘণ্টা, এক ঘণ্টা এগুলো কোন দেরি না। বাসে গেলে তো ঘণ্টার পর ঘণ্টা রাস্তায় বসে থাকতে হয়। এর চেয়ে ট্রেনই ভালো।’ যাত্রার আগে টিকিট কেনা নিয়ে অব্যবস্থাপনার অভিযোগ করলেন দিনাজপুরগামী একতা এক্সপ্রেসের যাত্রী মাসুদ হেলাল। তিনি ফার্মগেটের একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে চাকরি করেন। পাঁচ বন্ধু মিলে গ্রামের বাড়ি যাচ্ছেন। তিনি বলেন, সবচেয়ে বেশি খারাপ লাগে টিকিট কিনতে এসে। টিকিটে পাওয়া যায় না, আবার কালোবাজারে পাওয়া যায়। সরকার চাইলেই এই অব্যবস্থাপনা বন্ধ করতে পারে।

এ বিষয়ে কমলাপুর স্টেশনের ব্যবস্থাপক সিতাংশু চক্রবর্তী বলেন, ঈদযাত্রার দ্বিতীয় দিনে স্টেশনে অত বেশি ভিড় নেই। এর কারণ যাত্রীরা স্টেশনে এসেই ট্রেন পাচ্ছেন। লোকজন চলে যাচ্ছেন। এভাবে চললে যাত্রীদের ঈদযাত্রা নির্বিঘœ হবে এবং তারা নিরাপদে গন্তব্যে পৌঁছাতে পারবেন। ১৩ জুন থেকে ঈদ উপলক্ষে নয় জোড়া ট্রেন ছেড়ে যাবে স্টেশন থেকে। ঢাকা-পার্বতীপুর-ঢাকা, ঢাকা দেওয়ানঞ্জ-ঢাকা, ঢাকা-রাজশাহী-ঢাকা, ঢাকা-খুলনা-ঢাকা, ঢাকা-লালমনিরহাট-ঢাকা পথে এই বিশেষ ট্রেন চলবে। ঈদের পরের দিন থেকে সাত দিন পর্যন্ত এ ব্যবস্থা থাকছে। এ ছাড়া ঈদের দিন ভৈরব-কিশোরগঞ্জ পথে এক জোড়া ও ময়মনসিংহ-কিশোরগঞ্জ পথে এক জোড়া করে বিশেষ ট্রেন চলবে বলে জানান তিনি।

পাঁচ টাকার বাসভাড়া চাওয়ায় কিশোরকে চড়-থাপ্পড়

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

সাদা পোশাকের দুই পুলিশ সদস্যের কাছে ৫ টাকা গাড়ি ভাড়া চাওয়ায় গাড়ির ভেতরে কিশোর

এডিস মশার প্রজনন নির্মূলে সাড়ে ৫ হাজার বাড়িতে অভিযান চালাবে দক্ষিণ সিটি করপোরেশন

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

এডিস মশার প্রজনন নির্মূল করতে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের ৫ হাজার ৭শ’ বাড়িতে

গৃহকর্মী নির্যাতনকারী দম্পতির বিরুদ্ধে পুলিশের চার্জশিট

জেলা বার্তা পরিবেশক, বরিশাল

গৃহকর্মী নির্যাতনের অভিযোগে বরিশাল নগরীর বাজার রোড এলাকার ব্যবসায়ী আবদুস সালাম

sangbad ad

শ্যামলী পরিবহনে ইয়াবা পাচারে চালক-হেলপার গ্রেফতার

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

ইয়াবাসহ শ্যামলী পরিবহনের একটি বাসের চালক ও হেলপারকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব। তারা হলো- চালক

রাজধানীতে জমে থাকা বৃষ্টির পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

রাজধানীর জমে থাকা বৃষ্টির পানিতে ডুবে তানজিল (৫) নামে এক শিশু মারা গেছে। সোমবার

নিরাপদ পানির অভাবে জেনে-বুঝে আর্সেনিক বিষ পান করছে মানুষ!

রফিকুল আলম, মেহেরপুর

image

আর্সেনিক আতঙ্কে ভুগছে মেহেরপুর জেলার মানুষ। নিরাপদ পানির ব্যবস্থার অভাবে মানুষ জেনে

আষাঢ়ে বৈশাখী হালখাতা

কাজী কামাল হোসেন, নওগাঁ

image

বাংলাদেশে বাংলা সন প্রবর্তনের পর থেকে সর্বজনীন উৎসব হিসেবে হালখাতার প্রচলন শুরু হয়। এখন পয়লা

কারখানার বর্জ্যে অনাবাদি হাজার হাজার একর জমি

রণজিত ধর, মীরসরাই (চট্টগ্রাম)

image

মীরসরাই উপজেলার কয়েকটি প্রতিষ্ঠানের বিষাক্ত বর্জ্যে কয়েক গ্রামের হাজার হাজার একর

বিশ লক্ষ টাকায় মামলা প্রত্যাহারে রাজি

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

রাজধানীর মহাখালী ফ্লাইওভারে গাড়িচাপায় সেলিম ব্যাপারী নিহত হওয়ার ঘটনায় নোয়াখালী-৪ আসনের

sangbad ad