• banlag
  • newspaper
  • epaper

ঢাকা , শুক্রবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯

 

ব্যর্থ প্রত্যাশিত পুলিশ সেবা ও যানজট নিরসনে সফল জঙ্গি দমনে বিদায়ী কমিশনার আসাদুজ্জামান মিয়া

নিউজ আপলোড : ঢাকা , বৃহস্পতিবার, ০৮ আগস্ট ২০১৯

সংবাদ :
  • নিজস্ব বার্তা পরিবেশক
image

ঢাকা মেট্টোপলিটন পুলিশের (ডিএমপির) বিদায়ী কমিশনার আসাদুজ্জামান মিয়া বলেছেন, ৩২ বছরের চাকুরী জীবনে তার যেমন সাফল্য রয়েছে তেমনি ব্যর্থতাও রয়েছে। বিশেষ করে ডিএমপির কমিশনার হিসেবে দায়িত্ব পালণ করতে গিয়ে তিনি দুটি বিষয়ে ব্যর্থ হয়েছেন। এর একটি হলো জনগণের প্রত্যাশা অনুযায়ী থানাগুলোতে সেবার মান চালু করতে না পারা এবং রাজধানীর যানজট নিরসনে কার্যকর ব্যবস্থা নিতে না পারা। তবে থানাগুলোতে সেবার মান বাড়াতে না পারার ব্যর্থতার নেপথ্যে কি কারণ ছিলো তা বিস্তারিত না বললেও যাণঝট নিরসনে ব্যর্থতার জন্য তিনি সিটি কর্পোরেশন কর্তৃক ডিজিটাল সিগন্যাল ব্যবস্থাপনা নিয়ন্ত্রনে রাখা এবং ট্রাফিক আইন না মানার প্রবনাতাকে দায়ী করেছে।

১৩ আগস্ট নতুন কমিশনারের কাছে বিদায়ী কমিশনার আসাদুজ্জামান মিয়ার দায়িত্ব হস্তান্তর করার কথা রয়েছে। বৃহস্পতিবার (৮ আগস্ট) ছিলো তার শেষ কর্মদিবস। ৯ এবং ১০ আগস্ট সরকারী ছুটি। ১১ আগস্ট থেকে ইদুল আজহার ছুটি। গত সাড়ে ৪ বছর ধরে তিনি ডিএমপির কমিশনার হিসেবে দায়িত্ব পালণ করেছেন। কমিশনার হিসেবে আসাদুজ্জামান মিয়াই একমাত্র ব্যক্তি যিনি এতো দীর্ঘ সময় মেট্টোপটিলন পুলিশের সবচেয়ে গুরুত্বপূণ ইউনিট ডিএমপিতে কমিশনার হিসেবে দায়িত্ব পালণ করেছেণ । দীর্ঘ চাকুরী জীবনের প্রাপ্তি এবং কমিশনার হিসেবে গত ৫ বছরের কর্মকাণ্ডে সফলতা এবং ব্যর্থতার বিষয়ে কথা বলতে ৮ আগস্ট শেষবারের মতো সাংবাদিকদের মুখোমুখি হন আছাদুজ্জামান মিয়া। মিট দ্যা প্রেস নামে এ সংবাদ সম্মেলন শুরু হয় সকাল ১১ টার পর।

ঢাকা মহানগর পুলিশের মিডিয়া সেন্টারে আয়োজিত বিদায়ী মতবিনিময় অনুষ্ঠানে এক প্রশ্নের জবাবে আছাদুজ্জামান মিয়া বলেন, “এখানে সফলতা যদি কিছু থাকে সেটি আমি বলব, আমার যে টিম ডিএমপি, ৩৪ হাজার পুলিশ সদস্যকে দেশের জন্য, আইনশৃঙ্খলা রক্ষা করে জনগণের নিরাপত্তা বিধান করার জন্য এক সূত্রে রেখে কাজ করা সেটি আমার বড় সফলতা। “জঙ্গি দমনে আমাদের সাফল্য দেশ-বিদেশে প্রশংসিত হচ্ছে এবং এটি রোল মডেল হিসেবে সারা বিশ্ব নিয়েছে। আমরা একটি অনন্য কাজ করেছি; ভাড়াটিয়াদের ডেটাবেজ তৈরি করেছি। এ মুহূর্তে প্রায় ৭২ লাখ নাগরিকের ডেটাবেজ আমাদের সিটিজেন ইনফরমেশন ম্যানেজমেন্ট সিস্টেমে (সিআইএমএস) আছে।”এই ডেটাবেজের কারণে কোনো সন্ত্রাসী, অপরাধী পরিচয় গোপন করে ঢাকা শহরে লুকিয়ে থেকে অপরাধ করতে পারছে না ।

আর ব্যর্থতার কথা যদি বলি, অকপটে বলব জনগণের প্রত্যাশা ও প্রাপ্তির যে একটি ব্যবধান, এটি আমরা অনেক কমিয়ে এনেছি। কিন্তু এখানে আমরা শতভাগ সফল হইনি। থানায় মানুষ যে ধরনের সেবা পায়। সে কাঙ্খিত লক্ষ্য শতভাগ আমরা পূর্ণ করতে পারিনি। দ্বিতীয় আরেকটি ব্যর্থতার কথা বলব, ঢাকা শহরের যানজট নিয়ন্ত্রণ এবং একটি যানজটমুক্ত শহর করতে পারিনি। তবে এ দায়ভার শুধু ঢাকা মহানগর পুলিশের একার নয়। কারণ এখানে রাস্তা তৈরি করে সরকারের একটা সংস্থা, সিগন্যাল বাতি রক্ষণাবেক্ষণ করে আরেকটি সংস্থা। আর সবচেয়ে বড় সমস্যা আমাদের দেশের মানুষের আইন না মানার প্রবণতা; উল্টো পথে যাওয়া, সিগন্যাল ভায়োলেশন করা, যত্রতত্র গাড়ি পার্কিং করা। “এসব কারণে আমাদের যে লক্ষ্য ছিল- যানজটমুক্ত ঢাকা শহর, সেখানে আমরা সফল শতভাগ সফল হতে পারেনি আমাদের শত প্রচেষ্টা সত্ত্বেও।

রাজনৈতিক কর্মকান্ডে পুলিশকে ব্যবহার যে অভিযোগ, সে প্রসঙ্গে জানতে চাইলে আছাদুজ্জামান বলেন, “বাংলাদেশ পুলিশ প্রজাতন্ত্রের কর্মচারী। দেশের সংবিধান এবং ক্রিমিনাল ’ল এর বিধান অনুযায়ী পুলিশ দায়িত্ব পালন করে থাকে। রাজনৈতিক উদ্দেশ্যে ঢাকা মহানগর পুলিশ আমার কর্মকালের সময় কোনো কাজ করেছে, এমন কোনো সত্যতা নেই, এগুলো যারা বলে, তা বিভ্রান্তিমূলক, উদ্দেশ্যমূলক। “আমরা যখন আইনি ব্যবস্থা নিয়েছি, কেউ অবরোধ করেছে, আগুন দিয়েছে, মানুষের ওপর চড়াও হয়েছ, বোমা ছুড়েছে। এসব নৈরাজ্যমূলক কার্যকলাপের বিরুদ্ধে জনগণের জানমালের নিরাপত্তা ও রাষ্ট্রীয় সম্পদ রক্ষা করার দৃশ্যমান দায়িত্ব সংবিধান ও ক্রিমিনাল প্রসিডিউর কোড আমাদের ওপর ন্যস্ত করেছে।এই কাজটি করতে গিয়ে কেউ যদি বলে পুলিশ রাজনৈতিক উদ্দেশ্য প্রণোদিত হয়ে কাজটি করেছি, এটা অত্যন্ত অন্যায় এবং আমি বলব এটি পুলিশকে শুধু বিতর্কিত করাই নয়, একটি প্রতিষ্ঠানকে বিতর্কিত করার নামান্তর।হীনস্বার্থ চরিতার্থ করার জন্য পুলিশকে এভাবে একটি মিথ্যা ব্লেম দেওযয় অপতৎপরতা বলে আমি মনে করি।পুলিশে দুর্নীতির প্রসঙ্গে এক প্রশ্নে তিনি বলেন, “অন্যায়, দুর্নীতি বাংলাদেশের প্রত্যেকটা পেশাতেই কমবেশি আছে। ঢাকা মহানগরে জনগণের যাতে কোনো হয়রানি না হয়, সে বিষয়টি গুরুত্বের সাথে প্রত্যক্ষ ও নিবিড়ভাবে আমরা পর্যবেক্ষণ করি।

এর আগে কমিশনার বলেনদীর্ঘ ৩২ বছর পুলিশে চাকরি শেষে অবসরে যাচ্ছি। ১৬৮০ দিন ডিএমপি কমিশনার হিসেবে নগরবাসীকে সেবা করেছি। আজ আমার শেষ কর্মদিবস। আইন শৃংখলা রক্ষার্থে আপনারা আমাকে যেভাবে সহযোগিতা করেছেন সেজন্য আপনাদের প্রতি রইলো চির কৃতজ্ঞা। আপনাদের ভালোবাসা ও সুস্থতা নিয়ে অবসরে যাচ্ছি। অবসরের পরও দেশের স্বার্থে সবসময় নিয়োজিত থাকবো কমিশনার বলেন, একটি সময় ছিল পুলিশ ও সাংবাদিকতার মধ্যে অনেক দুরত্ব ছিল। কিন্তু আমার সাড়ে ৪ বছর ডিএমপি কমিশনার হিসেবে কর্মজীবনে সাংবাদিকদের সাথে চমৎকার পেশাদারিত্বপূর্ণ সম্পর্ক আছে। আমি ২০১৫ সালে কমিশনারের দায়িত্ব গ্রহণের পর টানা ৯২দিন আগুন সন্ত্রাস হয়েছিল। আমরা সাংবাদিক ও নগরবাসীকে সাথে নিয়ে সেই আগুন সন্ত্রাসকে দমন করেছি। ১ জুলাই ২০১৬ হলি আর্টিসান হামলায় দেশী বিদেশী ২২জন নাগরিক নিহত হন। স্বল্প সময়ের মধ্যে আমি আমরা অন্যান্য অফিসার নিয়ে হলি আর্টিসানে গিয়ে হাজির হই। আমার পাশেই সন্ত্রাসীদের ছোঁড়া একটি গ্রেনেড বিস্ফোরিত হয়েছিল। ভাগ্যক্রমে আমি বেঁচে গেলেও প্রাণ হারায় আমরা প্রিয় দুই সহকর্মী। এই সন্ত্রাসী হামলার পরিপ্রেক্ষিতে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর আহবানে দেশজুড়ে সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে নাগরিক ঐক্য তৈরি হয়। হলি আর্টিসান হামলার পর আমরা ছোট বড় ৬০টি প্রিভেনটিভ জঙ্গি বিরোধী অভিযান চালিয়েছি। তাতে অনেক জঙ্গি নিহত হয়েছে এবং অনেককেই আমরা গ্রেফতার করেছি। ৬ মাসের মধ্যে আমরা এই জঙ্গিদের নেটওয়ার্ক বিধস্ত করেছি। বিদেশী বিনিয়োগকারী ও ক্রেতাদের আস্থা আমরা স্বল্প সময়ে অর্জন করতে পেরেছি বলে দেশে বিনিয়োগ চলমান রয়েছে। মাদকের বিরুদ্ধে আমাদের অবস্থান সবসময় জিরো টলারেন্স। আমরা ঢাকা মহানগরীরে মাদক বিরোধী অনেক অভিযান করেছি। মাদকের আখড়া বলে খ্যাত সকল স্থান ভেঙ্গে সামাজিক প্রতিষ্ঠান করে দিয়েছি।

বিদায় মুহুর্তে অনেকটা বিমর্ষঃ

বৃহস্পতিবার মিট দ্যা প্রেস উপলক্ষে ডিএমপির মিডিয়া সেন্টারে আসনে বিদায়ী কমিশনার আছাদুজ্জামান মিয়া। চিত্র অন্যান্য দিনের চেয়ে একটু ভিন্ন ছিলো। অন্যান্য দিন কমিশনার হিসেবে প্রেস কনফারেন্সে আসলে সাথে পদস্ত পুলিশ কর্মকর্তা এবং ফোর্স নিরাপত্তা খুবই বেশি থাকতো। অতিরিক্ত কমিশনার থেকে শুরু করে ডিসি এডিসি এবং এসিরাও উপস্থিত থাকতেন কমিশনারের আগমনকে ঘিরে। তবে বৃহস্পতিবার শেষ সংবাদ সম্মেলনে অতিরিক্ত কমিশনার, ডিসিসহ পদস্ত কর্মকর্তাদের সংখ্যা বেশি দেখা যায়নি। অনেক কর্মকর্তাই বৃহস্পতিবার মিট দ্যা প্রেস অনুষ্ঠানে হাজির হননি। ঘনিস্ট কয়েকজন পদস্ত কর্মকর্তাদের সাথে নিয়ে বিদায়ী কমিশনার আসাদুজ্জামান মিয়া ডিএমপির মিডিয়া সেন্টারে সংবাদ সম্মেলনে আসেন তিনি সাড়ে ৪ বছরের কর্মকান্ড তুলে ধরে কথা বলার জন্য। হাসিমুখে সবার সঙ্গে কথা বললেও কিছুটা বিবর্ষ ছিলেন তিনি। শান্তভাবে সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তর দিয়েছেন। বৃহস্পতিবার বিকাল সাড়ে ৩ টায় সুধি সমাবেশ করেন ডিএমপি কমিশনার। ওই সমাবেশও ডিএমপির আয়োজনে করা হয়। সুধি সমাবেশে সরকার সমর্থক রাজনৈতিক দলসহ বিভিন্ন পর্যায়ের ব্যক্তিদের আমন্ত্রন ছিলো।

কর্তা-সিন্ডিকেট মিলে অস্তিত্বহীন ও পরিত্যক্ত মিলের সঙ্গে চুক্তি!

জেলা বার্তা পরিবশেক, নীলফামারী

image

বোরো সংগ্রহ অভিযানকে পুজি করে একটি সংঘবদ্ধ সিন্ডিকেট নীলফামারীর জলঢাকা, ডোমার, ডিমলা ও কিশোরগঞ্জ উপজেলায় তৈরী

মেয়েটিকে জিনে নিয়ে গেছে!

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

রাজধানীর পল্লবীর একটি মাদ্রারাসা থেকে সাজমিন আক্তার (১৩) নামে এক ছাত্রী ৩১ আগস্ট নিখোঁজ হয়। এরপর তার খোঁজ পাওয়া যায়নি।

পিয়াজের বাজারে অস্থিরতা

রোকন মাহমুদ

image

চাহিদার তুলনায় মজুদ বেশি থাকার পরও দেশের বাজারে হঠাৎ বেড়েছে পিয়াজের দাম। দেশের খুচরা পর্যায়ে দুই দিনের ব্যবধানে পিয়াজের

sangbad ad

‘অবহেলায় প্রসূতি মৃত্যু’র ঘটনার অন্তত কমিটি গঠেনের নির্দেশ

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

সিজারের পর চিকিৎসা ‘অবহেলায় প্রসূতি মৃত্যু’র ঘটনায় অন্তত তিনজন গাইনোকোলজি ও অবস বিশেষজ্ঞের সমন্বয়ে বিশেষজ্ঞ তদন্ত কমিটি

অভিযোগের প্রমাণ পেলে জাবি উপাচার্যের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে : কাদের

image

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ফারজানা ইসলামের বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগের প্রমাণ পেলে তার বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে

৪৮ হাজার মামলার তদন্ত সফলভাবে শেষ হয়েছে : বিশেষ সাক্ষাৎকারে পিবিআই ডিআইজি বনজ কুমার

বাকী বিল্লাহ

image

ন্যায়বিচার যেন সবাই পান, এ জন্য সবার বক্তব্য শুনে মামলার সত্য উদ্ঘাটন করা হচ্ছে। পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)

জাবি’র উন্নয়ন : কে কত টাকা আত্মসাৎ করবে তা উপাচর্য নিজ বাসবভনে বৈঠকের মাধ্যমে নির্ধারণ করে দিয়েছিলেন

প্রতিনিধি, জাবি

image

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের উন্নয়ন মহাপরিকল্পনার নির্মাণ কাজের টাকা ভাগ-বাটোয়ারা নিয়ে ছাত্রলীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সদ্যসাবেক সাধারণ

প্রয়োজনে আমি নিজে থানার ওসি হবো - ডিএমপি কমিশনার

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

থানায় সেবার মান বাড়াতে এবং পুলিশের আচরনে পরিবর্তন আনতে প্রয়োজনে নিজে থানায় গিয়ে ওসিগিরি করার ঘোষনা দিয়েছেন

শহীদ যায়ান চৌধুরী খেলার মাঠ উন্নয়ন কাজের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

রাজধানীর বনানীস্থ ‘শহীদ যায়ান চৌধুরী খেলার মাঠ উন্নয়ন কাজের’ ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন করা হয়েছে। শনিবার (১৪ সেপ্টেম্বর) বনানী ১ নম্বর

sangbad ad