• banlag
  • newspaper
  • epaper

ঢাকা , বৃহস্পতিবার, ১২ ডিসেম্বর ২০১৯

 

অতিরিক্ত ফি প্রদানে ব্যর্থ ও অপমানিত এসএসসি প্রার্থীর স্ট্রোকে মৃত্যু!

নিউজ আপলোড : ঢাকা , রোববার, ১৭ নভেম্বর ২০১৯

সংবাদ :
  • প্রতিনিধি, বদলগাছী (নওগাঁ)
image

পত্নীতলায় এসএসসি ও দাখিল পরীক্ষায় ফরম পূরণে অতিরিক্ত ফি আদায়ের অভিযোগ পাওয়া গেছে। অতিরিক্ত ফি আদায়ের বিষয়ে অভিভাবকরা প্রতিবাদ করলেও তা আমলে নিচ্ছে না শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের কর্তৃপক্ষ ও প্রশাসন। রাব্বী হাসান (১৬) এবার গগনপুর উচ্চবিদ্যালয় থেকে এসএসসি পরীক্ষা দেয়ার কথা ছিল তার। কিন্তু অসুস্থতার কারণে নির্বাচনী (টেস্ট) পরীক্ষায় দুটি বিষয়ে অংশ নিতে না পারায় অকৃতকার্য হয় সে। ফলে ফরম পূরণ করার সুযোগ দিতে গত ১১ নভেম্বর পরীক্ষার্থী অনুরোধ নিয়ে প্রধান শিক্ষক মোয়াজ্জেম হোসেনের কাছে সঙ্গে নিয়ে গিয়েছিলেন তার মা।

প্রধান শিক্ষক রাব্বী ও তার মাকে বলেছিলেন, ফরম পূরণের সরকার নির্ধারিত ফির সঙ্গে আরও ১ হাজার ৯০০ টাকা দিতে হবে। এসএসসি পরীক্ষার প্রস্তুতির জন্য স্কুলের কোচিংয়ের ফি এটি। এ সময় রাব্বীর মা ছেলেকে স্কুলের কোচিং করাবেন না জানালে প্রধান শিক্ষক মোয়াজ্জেম হোসেন রাব্বি ও তার মাকে অপমানজনক কথা বলেন এবং মা-ছেলেকে তাড়িয়ে দেন। মাকে নিয়ে বাড়ি ফেরার পথে রাব্বী হঠাৎ অজ্ঞান হয়ে পড়ে যায়। তৎক্ষণাৎ তাকে উদ্ধার করে পত্নীতলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন। ঘটনাটি ঘটে গত ১১ নভেম্বর রোববার। প্রধান শিক্ষকের অপমানে সহপাঠীর মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়লে স্কুলের শিক্ষার্থীরা ফুঁসে ওঠে। অন্য শিক্ষার্থী ও অভিভাবকেরা এই ঘটনার বিচার চেয়ে ১২ নভেম্বর (সোমবার) ও গত ১৩ নভেম্বর (মঙ্গলবার) এলাকায় বিক্ষোভ করেছেন। স্বজন ও সহপাঠীরা অভিযোগ করে বলেন, পরীক্ষা দিতে না পারার দুশ্চিন্তা ও অপমানে আর ক্ষোভে রাব্বী অসুস্থ হয়ে যায়। একপর্যায়ে স্ট্রোক হয় তার। এ ঘটনায় দায়ী প্রধান শিক্ষকের বিচার চেয়েছেন বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থী ও অভিভাবকেরা। এ বিষয়ে গগনপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোয়াজ্জেম হোসেনের সঙ্গে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি বিষয়টি নিয়ে কোন কথা বলতে রাজি হননি। গগনপুর উচ্চ বিদ্যালয় এর ব্যবস্থাপনা কমিটির সভাপতি ও ঘোষনগর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবু বকর সিদ্দিক বলেন, ‘কোচিংয়ের টাকার কারণে তার পরীক্ষার ফরম পূরণ করা হয়নি সেটি আমার জানা নেই। বিষয়টি খতিয়ে দেখা হবে। বিদ্যালয়ে ফরম পূরণের সময় কোচিংয়ের টাকা আদায় প্রসঙ্গে তিনি বলেন, রেজাল্ট ভাল করার জন্য স্কুলে কোচিংয়ের ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। কেউ কোচিং করতে চাইলে পারবে। তবে এটা বাধ্যতামূলক নয়। এ ঘটনায় উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মোচাহাক আলীকে প্রধান করে তিন সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি গঠন করেছেন উপজেলা প্রশাসন। অপরদিকে জানা যায়, মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড ও মাদরাসা শিক্ষা বোর্ড ২০২০ সালের এসএসসি ও দাখিল পরীক্ষায় ফরম পূরণে ফি নির্ধারণ করে দেয়। মানবিক ও ব্যবসা শাখায় ১,৭৫০ টাকা, বিজ্ঞান শাখায় ১,৯৮০ টাকা ও মাদরাসা ১,৭০০ টাকা। কিন্তু অধিকাংশ বিদ্যালয় ও মাদরাসায় সরকারি নিদের্শনাকে উপেক্ষা করে কোচিং ফি এবং উন্নয়ন ফি’সহ নানা অজুহাতে ৩ হাজার থেকে ৪ হাজার টাকা পর্যন্ত আদায় করা হচ্ছে। তবে বাড়তি টাকার জন্য কোন রশিদ দেয়া হচ্ছে না কোন ছাত্র-ছাত্রী বা অভিভাবকদের। বিভিন্ন বিদ্যালয় ঘুরে জানা গেছে, গগণপুর উচ্চ বিদ্যালয় ৪ হাজার টাকা, নজিপুর বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় ২ হাজার ৭৫০ টাকা, কুন্দন উচ্চ বিদ্যালয় ৩ হাজার ৫০ টাকা, শিমুলিয়া উচ্চ বিদ্যালয় ৩ হাজার ৬০০ টাকা, আমাইগ উচ্চ বিদ্যালয় ৩ হাজার ১০০ টাকা, পুইয়া উচ্চ বিদ্যালয় ৩ হাজার ৫০০ টাকা, পতœীতলা উচ্চ বিদ্যালয় ৩ হাজার ৫০০ টাকা, মধইল উচ্চ বিদ্যালয় ৩ হাজার টাকা, শিবপুর উচ্চ বিদ্যালয় ৩ হাজার ৪৫০ টাকা, উষ্টি উচ্চ বিদ্যালয় ৩ হাজার ১০০ টাকা, মান্দইন উচ্চ বিদ্যালয় ২ হাজার ৯৫০ টাকা, বাঁকরইল উচ্চ বিদ্যালয় ৩ হাজার ৭০০ টাকা, আমন্ত উচ্চ বিদ্যালয় ৩ হাজার ৫০০ টাকা, শিড়াহা উচ্চ বিদ্যালয় ৪ হাজার টাকা, নজিপুর সিদ্দিকিয়া মাদরাসা ২ হাজার ৫০০ টাকা, উষ্টি জাকের ফাজিল মাদরাসা ৩ হাজার ২০০ টাকা, গগনপুর ওয়াজেদিয়া ফাজিল মাদরাসা ৩ হাজার টাকা, পাটিআমলা মাদরাসা ২ হাজার ৮০০ টাকা। কুন্দন উচ্চ বিদ্যালয়ের এক ছাত্রী বাবা শাহাজান আলী বলেন, আমার মেয়ের ফরম পূরণের ফি ১ হাজার ৭৫০ টাকার স্থলে ৩ হাজার ৫০ টাকা নিয়েছেন।

ব্ল্যাক বেঙ্গল ছাগলে বছরে আয় ২ হাজার কোটি টাকা

মাহফুজ উদ্দীন খান, চুয়াডাঙ্গা

image

দেশের মধ্যে বিশ্ববিখ্যাত ব্লাক বেঙ্গল বেশি পালন করায় চুয়াডাঙ্গা জেলাকে ব্র্যান্ড হিসেবে ঘোষণা করা হয়েছে। রোগ বালাই কম ও লাভজনক

লক্ষ্যমাত্রা ১০ হাজার হেক্টর ছাপিয়ে যাবে পিয়াজ আবাদ

আব্দুল হান্নান, সদরপুর (ফরিদপুর)

image

চলতি রবি মৌসুমে দেশে পিয়াজ-রসুনের পরিচর্যা করতে ব্যস্ত সময় পার করছে কৃষকেরা। চলতি মৌসুমে পিয়াজের দাম অস্বাভাবিক বেড়ে

লাল-সবুজের ফেরিওয়ালা ফজলু

প্রতিনিধি, আদমদীঘি (বগুড়া)

image

বগুড়ার আদমদীঘি উপজেলার সান্তাহার পৌর শহরের বিজয় দিবস উপলক্ষে ফেরি করে জাতীয় পতাকা বিক্রি শুরু হয়েছে। ডিসেম্বরের শুরু

sangbad ad

এলাকাবাসীর স্বউদ্যোগে কাঠের সেতুতে জীবন ঝুঁকির অবসান

আতাউর রহমান, ভালুকা (ময়মনসিংহ)

image

ভালুকার ঝালপাজা গ্রামে খীরু নদীর ওপর প্রায় দেড়শ ফুট লম্বা একটি কাঠের সেতু নির্মাণ করে দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে এলাকাবাসী। ভালুকার

আওয়ামী লীগ নেতা ও বন কর্মকর্তার বিরুদ্ধে বন উজাড়ের অভিযোগ

শামসুল ইসলাম সহিদ, মির্জাপুর (টাঙ্গাইল)

image

বনের জায়গা দখল করে অবাদে নির্মিত হচ্ছে ঘর বাড়ি। এতে বনের জায়গা কমে পরিবেশের ভারসাম্য বিনষ্ট হচ্ছে বলে গুরুতর অভিযোগ

ব্যাংক থেকে ১১৫ কোটি টাকার ঋণ নিয়ে দম্পতি উধাও

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

image

সাউথ ইস্ট ব্যাংকের নওগাঁ শাখা থেকে ব্যবসার জন্য ১১৫ কোটি টাকা ঋণ নেয়ার পর দেশ ছেড়ে পালিয়েছে এক ব্যবসায়ী দম্পতি। ব্যবসায়ী

বাব-দাদার দান বলে স্কুল মাঠের মাটি কেটে নিয়ে যাচ্ছেন প্রধান শিক্ষক

প্রতিনিধি, কুড়িগ্রাম

image

উপজেলার নাওডাঙ্গা ইউনিয়নের কুরুষাফেরুষা খন্দকার পাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক হাফিজুর রহমান নিজের নিচু

শিবচরে শেখ হাসিনা তাঁতপল্লীতে খুঁজে পাওয়া যায় না ১৯’শ কোটি টাকা!

প্রতিনিধি, শিবচর (মাদারীপুর)

image

শিবচরে শেখ হাসিনা তাঁত পল্লীতে কোটি টাকার দুর্নীতি অভিযোগ উপজেলা প্রশাসনের তদন্তে প্রমাণও মিলেছে। ক্ষতিপূরণের তালিকায় বেশকিছু

নিষেধাজ্ঞা ও স্বাস্থ্য হুমকি উপেক্ষা করে মৎস্য ঘেরে মুরগির খামার

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক, বরিশাল

image

সরকারি নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে মাছের খাদ্য হিসেবে বরিশালের অধিকাংশ

sangbad ad